দারেমী পবিত্রতা অধ্যায় ৬ষ্ঠ ভাগ হাদিস নং ১০৯২ – ১১৬৮

 ১০৯২

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৮. হায়িযগ্রস্ত মহিলা তার স্বামীর চুল আঁচড়ে দিতে পারে

১০৯২. উরওয়াহ রাহি. থেকে বর্ণিত, আয়িশাহ রাদ্বিয়াল্লাহু আনহা বলেন, আমি রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের মাথা আঁচড়ে দিতাম, অথচ তখন আমি হায়িযগ্রস্ত অবস্থায় ছিলাম।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: হাদীসটি সহীহ।

তাখরীজ: মালিক ১০৪; সহীহ বুখারী ২৯৫; সহীহ মুসলিম ২৯৭; আমরা এর পূর্ণ তাখরীজ করেছি মুসনাদুল মাউসিলী ৪৬৩২ নং ; সহীহ ইবনু হিব্বান নং ১৩৫৯ এবং মুসনাদুল হুমাইদী নং ১৮৪ এ।

بَاب الْحَائِضِ تَمْشُطُ زَوْجَهَا

أَخْبَرَنَا خَالِدُ بْنُ مَخْلَدٍ حَدَّثَنَا مَالِكٌ عَنْ ابْنِ شِهَابٍ عَنْ عُرْوَةَ عَنْ عَائِشَةَ قَالَتْ كُنْتُ أُرَجِّلُ رَأْسَ رَسُولِ اللَّهِ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ وَأَنَا حَائِضٌ

أخبرنا خالد بن مخلد حدثنا مالك عن ابن شهاب عن عروة عن عائشة قالت كنت أرجل رأس رسول الله صلى الله عليه وسلم وأنا حائض

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ উরওয়াহ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১০৯৩

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৮. হায়িযগ্রস্ত মহিলা তার স্বামীর চুল আঁচড়ে দিতে পারে

১০৯৩. হিশাম ইবনু উরওয়াহ তার পিতা হতে বর্ণনা করেন, তিনি আয়িশা রাদ্বিয়াল্লাহু আনহা হতে বর্ণনা করেন, তিনি বলেন, আমি রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের মাথা আঁচড়ে দিতাম, অথচ তখন আমি হায়িযগ্রস্ত অবস্থায় ছিলাম।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: হাদীসটি সহীহ।

তাখরীজ: দেখুন, আগের টীকাটি।

بَاب الْحَائِضِ تَمْشُطُ زَوْجَهَا

أَخْبَرَنَا خَالِدٌ حَدَّثَنَا مَالِكٌ عَنْ هِشَامِ بْنِ عُرْوَةَ عَنْ أَبِيهِ عَنْ عَائِشَةَ قَالَتْ كُنْتُ أُرَجِّلُ رَأْسَ رَسُولِ اللَّهِ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ وَأَنَا حَائِضٌ

أخبرنا خالد حدثنا مالك عن هشام بن عروة عن أبيه عن عائشة قالت كنت أرجل رأس رسول الله صلى الله عليه وسلم وأنا حائض

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ হিশাম ইবন উরওয়াহ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১০৯৪

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৮. হায়িযগ্রস্ত মহিলা তার স্বামীর চুল আঁচড়ে দিতে পারে

১০৯৪. মালিক রাহি. হতে বর্ণিত, নাফিঈ’ রাহি. বলেন, ইবনু উমার রাদ্বিয়াল্লাহু আনহুর দাসীগণ তার পা দু’টি ধুয়ে দিত এবং তাকে ’খুমরাহ’ বা জায়নামায এনে দিত; অথচ তখন তারা হায়িযগ্রস্ত থাকত।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এ হাদীসটি সহীহ।

তাখরীজ: মালিক ৯০; আব্দুর রাযযাক নং ১২৫৫; ইবনু আবী শাইবা ১/২০২।

بَاب الْحَائِضِ تَمْشُطُ زَوْجَهَا

أَخْبَرَنَا خَالِدٌ حَدَّثَنَا مَالِكٌ عَنْ نَافِعٍ قَالَ كُنَّ جَوَارِي ابْنِ عُمَرَ يَغْسِلْنَ رِجْلَيْهِ وَهُنَّ حُيَّضٌ وَيُعْطِينَهُ الْخُمْرَةَ

أخبرنا خالد حدثنا مالك عن نافع قال كن جواري ابن عمر يغسلن رجليه وهن حيض ويعطينه الخمرة

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ মালিক ইবনু আনাস (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১০৯৫

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৮. হায়িযগ্রস্ত মহিলা তার স্বামীর চুল আঁচড়ে দিতে পারে

১০৯৫. মিক্বদাম ইবনু শুরাইহ ইবনু হানী তার পিতা হতে বর্ণনা করেন, আয়িশা রাদ্বিয়াল্লাহু আনহা বলেন, আমি হায়িযগ্রস্ত অবস্থায় আমার নিকট পাত্র আনা হলে আমি তা থেকে পান করতাম। এরপর আমি পাত্রের যে স্থানে মুখ লাগিয়ে পান করতাম, রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম ঠিক সেইস্থানেই মুখ লাগিয়ে পান করতেন। আমাকে গোশতের হাড্ডি দেয়া হলে আমি গোশতের হাড়ের যেস্থানে কামড় দিতাম, তিনিও ঠিক সেইস্থানেই মুখ লাগিয়ে কামড় দিতেন। তারপর আমার হায়িযগ্রস্ত অবস্থায় তিনি আমাকে ইযার পরার নির্দেশ দিতেন এবং তিনি আমার সাথে মেলামেশা (জড়াজড়ি) করতেন।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এ হাদীসটি সহীহ।

তাখরীজ: সহীহ মুসলিম ৩০০; আমরা এর তাখরীজ পূর্ণ করেছি মুসনাদুল মাউসিলী নং ৪৭৭১; সহীহ ইবনু হিব্বান নং ১২৯৩, ১৩৬০, ১৩৬১ এবং মুসনাদুল হুমাইদী নং ১৬৬ তে।

بَاب الْحَائِضِ تَمْشُطُ زَوْجَهَا

أَخْبَرَنَا مُحَمَّدُ بْنُ يُوسُفَ حَدَّثَنَا سُفْيَانُ عَنْ الْمِقْدَامِ بْنِ شُرَيْحِ بْنِ هَانِئٍ عَنْ أَبِيهِ عَنْ عَائِشَةَ قَالَتْ كُنْتُ أُوتَى بِالْإِنَاءِ فَأَضَعُ فَمِي فَأَشْرَبُ وَأَنَا حَائِضٌ فَيَضَعُ رَسُولُ اللَّهِ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ فَمَهُ عَلَى الْمَكَانِ الَّذِي وَضَعْتُ فَيَشْرَبُ وَأُوتَى بِالْعَرْقِ فَأَنْتَهِسُ فَيَضَعُ فَاهُ عَلَى الْمَكَانِ الَّذِي وَضَعْتُ فَيَنْتَهِسُ ثُمَّ يَأْمُرُنِي فَأَتَّزِرُ وَأَنَا حَائِضٌ وَكَانَ يُبَاشِرُنِي

أخبرنا محمد بن يوسف حدثنا سفيان عن المقدام بن شريح بن هانئ عن أبيه عن عائشة قالت كنت أوتى بالإناء فأضع فمي فأشرب وأنا حائض فيضع رسول الله صلى الله عليه وسلم فمه على المكان الذي وضعت فيشرب وأوتى بالعرق فأنتهس فيضع فاه على المكان الذي وضعت فينتهس ثم يأمرني فأتزر وأنا حائض وكان يباشرني

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১০৯৬

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৮. হায়িযগ্রস্ত মহিলা তার স্বামীর চুল আঁচড়ে দিতে পারে

১০৯৬. মুগীরাহ হতে বর্ণিত, ইবরাহীম রাহি. বলেন, তার নিকট বলা হয়েছে: হায়িযগ্রস্ত মহিলার হায়িয তার হাতে লেগে নেই। সে তার হাত ধুয়ে নেবে এবং আটার খামীর বানাবে এবং নবীয তৈরি করবে।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: আমি এটি আর কোথাও পাইনি। তবে এটি মারফু’ হিসেবে সহীহ। দেখুন ৭৯৮ ও ১১০৫ (অনুবাদে ৭৯২, ১০৯৯) নং ও পরবর্তী হাদীসটি।

بَاب الْحَائِضِ تَمْشُطُ زَوْجَهَا

أَخْبَرَنَا مُحَمَّدُ بْنُ يُوسُفَ حَدَّثَنَا سُفْيَانُ عَنْ مُغِيرَةَ عَنْ إِبْرَاهِيمَ قَالَ كَانَ يُقَالُ الْحَائِضُ لَيْسَتْ الْحِيضَةُ فِي يَدِهَا تَغْسِلُ يَدَهَا وَتَعْجِنُ وَتَنْبِذُ

أخبرنا محمد بن يوسف حدثنا سفيان عن مغيرة عن إبراهيم قال كان يقال الحائض ليست الحيضة في يدها تغسل يدها وتعجن وتنبذ

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ মুগীরাহ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১০৯৭

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৮. হায়িযগ্রস্ত মহিলা তার স্বামীর চুল আঁচড়ে দিতে পারে

১০৯৭. মুগীরাহ হতে বর্ণিত, ইবরাহীম রাহি. বলতেন, হায়িযগ্রস্ত মহিলার হায়িয তার হাতে লেগে নেই। তিনি আরও বলতেন: হায়িযগ্রস্ত মহিলা তো জীবিত (অনেক নারী-পূরুষে)-দের প্রিয়ভাজন ব্যক্তি।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: আমি এটি আর কোথাও পাইনি। আগের হাদীসটি দেখুন।

بَاب الْحَائِضِ تَمْشُطُ زَوْجَهَا

أَخْبَرَنَا أَبُو زَيْدٍ حَدَّثَنَا شُعْبَةُ عَنْ مُغِيرَةَ عَنْ إِبْرَاهِيمَ قَالَ كَانَ يَقُولُ إِنَّ الْحَائِضَ حِيضَتُهَا لَيْسَتْ فِي يَدِهَا وَكَانَ يَقُولُ الْحَائِضُ حُبُّ الْحَيِّ

أخبرنا أبو زيد حدثنا شعبة عن مغيرة عن إبراهيم قال كان يقول إن الحائض حيضتها ليست في يدها وكان يقول الحائض حب الحي

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ মুগীরাহ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১০৯৮

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৮. হায়িযগ্রস্ত মহিলা তার স্বামীর চুল আঁচড়ে দিতে পারে

১০৯৮. হাম্মাদ রাহি. হতে বর্ণিত, তিনি বলেন, আমি ইবরাহীম রাহি. কে ইযাহুদী, নাসারা এবং অগ্নিপুজকদের সাথে মুসাফাহ’ করা ও হায়িযগ্রস্ত মহিলার ব্যাপারে জিজ্ঞেস করলাম। তিনি এ জন্য ওযু করা প্রয়োজন বলে মনে করেননি।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: আব্দুর রাযযাক নং ৪৫৫।

بَاب الْحَائِضِ تَمْشُطُ زَوْجَهَا

أَخْبَرَنَا جَعْفَرُ بْنُ عَوْنٍ حَدَّثَنَا سُفْيَانُ عَنْ حَمَّادٍ قَالَ سَأَلْتُ إِبْرَاهِيمَ عَنْ مُصَافَحَةِ الْيَهُودِيِّ وَالنَّصْرَانِيِّ وَالْمَجُوسِيِّ وَالْحَائِضِ فَلَمْ يَرَ فِيهِ وُضُوءًا

أخبرنا جعفر بن عون حدثنا سفيان عن حماد قال سألت إبراهيم عن مصافحة اليهودي والنصراني والمجوسي والحائض فلم ير فيه وضوءا

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ হাম্মাদ ইবনু আবী সুলাইমান (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১০৯৯

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৮. হায়িযগ্রস্ত মহিলা তার স্বামীর চুল আঁচড়ে দিতে পারে

১০৯৯. আব্দুল্লাহ আল বাহী বলেন, আয়িশা রাদ্বিয়াল্লাহু আনহা বর্ণনা করেন যে, রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম মসজিদে ছিলেন। এমতাবস্থায় তিনি তার দাসীকে ডেকে বললেন: “আমাকে ’খুমরাহ’ বা জায়নামায এনে দাও।” তিনি (আয়িশা রা:) বলেন, তিনি তা বিছিয়ে সালাত আদায় করতে চেয়েছিলেন। তখন সেই দাসী বলল যে, তার তো হায়িয হয়েছে। তখন তিনি বললেন: “তোমার হাতে তো আর হায়িয লেগে নেই।”[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ হাসান জাফর ইবনু হারিস আল ওয়ারিসীর কারণে। তবে হাদীসটি বুখারী মুসলিমের হাদীস।

তাখরীজ: বুখারী ৩০১; মুসলিম ২৯৭; আবু আউয়ানা ১/৩১৩ সহীহ সনদে। আমরা এর পূর্ণাঙ্গ তাখরীজ করেছি সহীহ ইবনু হিব্বান নং ৩৬৬৮, ৩৬৬৯। আরও দেখুন, পরবর্তী হাদীসটি এবং বিগত ১০৯৮, ১০৯৯ ও ১১০৬ (অনুবাদে ১০৯২, ১০৯৩ ও ১১০০) নং হাদীসসমূহ।

بَاب الْحَائِضِ تَمْشُطُ زَوْجَهَا

أَخْبَرَنَا أَبُو الْوَلِيدِ الطَّيَالِسِيُّ حَدَّثَنَا زَائِدَةُ حَدَّثَنَا إِسْمَعِيلُ السُّدِّيُّ عَنْ عَبْدِ اللَّهِ الْبَهِيِّ قَالَ حَدَّثَتْنِي عَائِشَةُ أَنَّ رَسُولَ اللَّهِ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ كَانَ فِي الْمَسْجِدِ فَقَالَ لِلْجَارِيَةِ نَاوِلِينِي الْخُمْرَةَ قَالَتْ أَرَادَ أَنْ يَبْسُطَهَا وَيُصَلِّيَ عَلَيْهَا فَقَالَتْ إِنَّهَا حَائِضٌ فَقَالَ إِنَّ حِيضَتَهَا لَيْسَ فِي يَدِهَا

أخبرنا أبو الوليد الطيالسي حدثنا زائدة حدثنا إسمعيل السدي عن عبد الله البهي قال حدثتني عائشة أن رسول الله صلى الله عليه وسلم كان في المسجد فقال للجارية ناوليني الخمرة قالت أراد أن يبسطها ويصلي عليها فقالت إنها حائض فقال إن حيضتها ليس في يدها

 হাদিসের মানঃ হাসান (Hasan)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১০০

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৮. হায়িযগ্রস্ত মহিলা তার স্বামীর চুল আঁচড়ে দিতে পারে

১১০০. উরওয়াহ হতে বর্ণিত, আয়িশা রাদ্বিয়াল্লাহু আনহা বলেন, রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম মসজিদে অবস্থানকালে তাঁর মাথা বের করে দিতেন এবং আমি তা ধুয়ে দিতাম। তারমানে তখন তিনি ই’তিকাফকারী ছিলেন।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: সহীহ মুসলিম ২৯৮ (৮)। সামনে ১১০৯ (অনুবাদে ১১০৩) নং এ আসছে। পূর্ণাঙ্গ তাখরীজের জন্য দেখুন বিগত ১০৯৮, ১০৯৯ (অনুবাদে ১০৯২, ১০৯৩) নং হাদীসগুলি।

بَاب الْحَائِضِ تَمْشُطُ زَوْجَهَا

أَخْبَرَنَا عَبْدُ اللَّهِ بْنُ مَسْلَمَةَ حَدَّثَنَا فُضَيْلُ بْنُ عِيَاضٍ عَنْ سُلَيْمَانَ عَنْ تَمِيمِ بْنِ سَلَمَةَ عَنْ عُرْوَةَ عَنْ عَائِشَةَ قَالَتْ كَانَ رَسُولُ اللَّهِ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ يُخْرِجُ إِلَيَّ رَأْسَهُ مِنْ الْمَسْجِدِ فَأَغْسِلُهُ يَعْنِي وَهُوَ مُعْتَكِفٌ

أخبرنا عبد الله بن مسلمة حدثنا فضيل بن عياض عن سليمان عن تميم بن سلمة عن عروة عن عائشة قالت كان رسول الله صلى الله عليه وسلم يخرج إلي رأسه من المسجد فأغسله يعني وهو معتكف

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ উরওয়াহ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১০১

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৮. হায়িযগ্রস্ত মহিলা তার স্বামীর চুল আঁচড়ে দিতে পারে

১১০১. মুগীরাহ হতে বর্ণিত, হায়িযগ্রস্ত মহিলা কর্তৃক অসুস্থ ব্যক্তিকে ওযু করানোকে ইবরাহীম রাহি. দোষণীয় মনে করতেন না।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: সামনে ১১১০ (অণুবাদে ১১০৪) নং এ আসছে।

بَاب الْحَائِضِ تَمْشُطُ زَوْجَهَا

أَخْبَرَنَا الْمُعَلَّى بْنُ أَسَدٍ حَدَّثَنَا أَبُو عَوَانَةَ عَنْ مُغِيرَةَ عَنْ إِبْرَاهِيمَ كَانَ لَا يَرَى بَأْسًا أَنْ تُوَضِّئَ الْحَائِضُ الْمَرِيضَ

أخبرنا المعلى بن أسد حدثنا أبو عوانة عن مغيرة عن إبراهيم كان لا يرى بأسا أن توضئ الحائض المريض

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ মুগীরাহ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১০২

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৮. হায়িযগ্রস্ত মহিলা তার স্বামীর চুল আঁচড়ে দিতে পারে

১১০২. আল-আসওয়াদ হতে বর্ণিত, আয়িশা রাদ্বিয়াল্লাহু আনহা বলেন, আমি রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের মাথা ধুয়ে দিতাম, অথচ তখন আমি ছিলাম হায়িযগ্রস্ত।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ হাসান জা’ফর ইবনুল হারিস এর কারণে। কিন্তু হাদীসটি সহীহ বুখারী-মুসলিমের হাদীস।

তাখরীজ: বুখারী নং ৩০১; মুসলিম ২৯৭; সহীহ আবী আউয়ানাহ ১/৩১৩ সহীহ সনদে। আমরা এর পূর্ণ তাখরীজ করেছি সহীহ ইবনু হিব্বান নং ৩৬৭৮, ৩৬৭৯। এবং পরবর্তী হাদীসটি এবং বিগত ১০৯৮, ১০৯৯, ১১০৬ (অনুবাদে ১০৯২, ১০৯৩, ১১০০) নং হাদীসগুলি দেখুন।

بَاب الْحَائِضِ تَمْشُطُ زَوْجَهَا

أَخْبَرَنَا يَزِيدُ بْنُ هَارُونَ عَنْ جَعْفَرِ بْنِ الْحَارِثِ عَنْ مَنْصُورٍ عَنْ إِبْرَاهِيمَ عَنْ الْأَسْوَدِ عَنْ عَائِشَةَ قَالَتْ كُنْتُ أَغْسِلُ رَأْسَ النَّبِيِّ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ وَأَنَا حَائِضٌ

أخبرنا يزيد بن هارون عن جعفر بن الحارث عن منصور عن إبراهيم عن الأسود عن عائشة قالت كنت أغسل رأس النبي صلى الله عليه وسلم وأنا حائض

 হাদিসের মানঃ হাসান (Hasan)  বর্ণনাকারীঃ আসওয়াদ ইবনে ইয়াযীদ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১০৩

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৮. হায়িযগ্রস্ত মহিলা তার স্বামীর চুল আঁচড়ে দিতে পারে

১১০৩. উরওয়াহ হতে বর্ণিত, আয়িশা রাদ্বিয়াল্লাহু আনহা বলেন, আমি রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের মাথা ধুয়ে দিয়েছি, অথচ তখন আমি ছিলাম হায়িযগ্রস্ত, আর তিনি ছিলেন ই’তিকাফরত।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: এটি গত হয়েছে ১১০৬ (অনুবাদে ১১০০) নং এ। আগের হাদীসটিও দেখুন।

بَاب الْحَائِضِ تَمْشُطُ زَوْجَهَا

أَخْبَرَنَا يَعْلَى بْنُ عُبَيْدٍ حَدَّثَنَا الْأَعْمَشُ عَنْ تَمِيمِ بْنِ سَلَمَةَ عَنْ عُرْوَةَ عَنْ عَائِشَةَ قَالَتْ لَقَدْ كُنْتُ أَغْسِلُ رَأْسَ رَسُولِ اللَّهِ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ وَأَنَا حَائِضٌ وَهُوَ عَاكِفٌ

أخبرنا يعلى بن عبيد حدثنا الأعمش عن تميم بن سلمة عن عروة عن عائشة قالت لقد كنت أغسل رأس رسول الله صلى الله عليه وسلم وأنا حائض وهو عاكف

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ উরওয়াহ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১০৪

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৮. হায়িযগ্রস্ত মহিলা তার স্বামীর চুল আঁচড়ে দিতে পারে

১১০৪. শু’বাহ বলেন, আমি মুগীরাহকে বলতে শুনেছি, আবী যুবইয়ান এক ব্যক্তিকে ইবরাহীম রাহি. এর নিকট এ বিষয়ে জিজ্ঞেস করার জন্য পাঠালেন যে, হায়িযগ্রস্ত মহিলা অসুস্থ ব্যক্তিকে ওযু করাতে পারবে কি-না?

তিনি বললেন: হাঁ।’ (তাকে আরও জিজ্ঞেস করা হলো,) ’সে তার উপর ঠেস দিতে পারবে কি? তিনি বলেন: না।

তখন আমি (শু’বাহ) মুগীরাহকে বললাম, আপনি কি একথা ইবরাহীমের নিকট থেকে শুনেছেন? তিনি বললেন, না।[1]আব্দুল্লাহ বলেন: ’সে তার উপর ঠেস দিতে পারবে কি?’-একথার অর্থ সালাতের মধ্যে (ঠেস দেওয়া সম্পর্কে)।

[1] তাহক্বীক্ব; ইনকিতা’ বা বিচ্ছিন্নতার কারণে এর সনদ যয়ীফ।

তাখরীজ: আব্দুর রাযযাক নং ১২৫৯; ইবনু আবী শাইবা ১/২০২। এটি ১১০৭ (অনুবাদে ১১০২) নং এ গত হয়েছে।

بَاب الْحَائِضِ تَمْشُطُ زَوْجَهَا

أَخْبَرَنَا أَبُو الْوَلِيدِ الطَّيَالِسِيُّ حَدَّثَنَا شُعْبَةُ قَالَ سَمِعْتُ مُغِيرَةَ قَالَ أَرْسَلَ أَبُو ظَبْيَانَ إِلَى إِبْرَاهِيمَ يَسْأَلُهُ عَنْ الْحَائِضِ تُوَضِّئُ الْمَرِيضَ قَالَ نَعَمْ وَتُسْنِدُهُ قَالَ لَا فَقُلْتُ لِلْمُغِيرَةِ سَمِعْتَهُ مِنْ إِبْرَاهِيمَ قَالَ لَا قَالَ عَبْد اللَّهِ وَتُسْنِدُهُ يَعْنِي فِي الصَّلَاةِ

أخبرنا أبو الوليد الطيالسي حدثنا شعبة قال سمعت مغيرة قال أرسل أبو ظبيان إلى إبراهيم يسأله عن الحائض توضئ المريض قال نعم وتسنده قال لا فقلت للمغيرة سمعته من إبراهيم قال لا قال عبد الله وتسنده يعني في الصلاة

 হাদিসের মানঃ যঈফ (Dai’f)  বর্ণনাকারীঃ শু’বা (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১০৫

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৮. হায়িযগ্রস্ত মহিলা তার স্বামীর চুল আঁচড়ে দিতে পারে

১১০৫. কাসিম আয়িশা রাদ্বিয়াল্লাহু আনহা থেকে বর্ণনা করেন যে, নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তাকে বলেন, “আমাকে ’খুমরাহ’ বা জায়নামাযটি এনে দাও।” তখন তিনি বললেন যে, আমার তো হায়িয হয়েছে। তখন তিনি (নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম) বললেন: “তা (তোমার হায়িয) তো আর তোমার হাতে হয়নি।”[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: আবু আওয়ানাহ ১/৩১৩; সহীহ মুসলিম ২৯৮; আবু দাউদ ২৬১; নাসাঈ ২৭২, ২৭৩; তিরমিযী ১৩৪; এটি ৭৯৭ ((এটি ভূল, আসলে মুহাক্বিক্বের নুসখায় এটি ৭৯৮ নং এ রয়েছে-অনুবাদক)) ও ১১০৫ (অনুবাদে ৭৯১ ও ১০৯৯) নং এ গত হয়েছে।

بَاب الْحَائِضِ تَمْشُطُ زَوْجَهَا

أَخْبَرَنَا أَبُو الْوَلِيدِ حَدَّثَنَا شُعْبَةُ قَالَ سُلَيْمَانُ أَخْبَرَنِي عَنْ ثَابِتِ بْنِ عُبَيْدٍ عَنْ الْقَاسِمِ عَنْ عَائِشَةَ أَنَّ النَّبِيَّ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ قَالَ لَهَا نَاوِلِينِي الْخُمْرَةَ قَالَتْ إِنِّي حَائِضٌ قَالَ إِنَّهَا لَيْسَتْ فِي يَدِكِ

أخبرنا أبو الوليد حدثنا شعبة قال سليمان أخبرني عن ثابت بن عبيد عن القاسم عن عائشة أن النبي صلى الله عليه وسلم قال لها ناوليني الخمرة قالت إني حائض قال إنها ليست في يدك

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ কাসিম বিন মুহাম্মাদ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১০৬

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৮. হায়িযগ্রস্ত মহিলা তার স্বামীর চুল আঁচড়ে দিতে পারে

১১০৬. কাছীর ইবনু শিনযীর হাসান রাহি. হতে বর্ণনা করেন, তাকে জিজ্ঞাসা করা হয়েছিল, হায়িযগ্রস্ত মহিলা যে পানি থেকে পান করেছে, সেই পানি দ্বারা কি ওযু করা যাবে? তিনি হেঁসে বললেন, হাঁ।’[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: আব্দুর রাযযাক নং ৩৯১ সহীহ সনদে, অপর সনদে ৩৯৩; ইবনু আবী শাইবা ৩৪/১ সহীহ সনদে।

بَاب الْحَائِضِ تَمْشُطُ زَوْجَهَا

حَدَّثَنَا سُلَيْمَانُ بْنُ حَرْبٍ حَدَّثَنَا حَمَّادُ بْنُ زَيْدٍ عَنْ كَثِيرِ بْنِ شِنْظِيرٍ عَنْ الْحَسَنِ أَنَّهُ سُئِلَ عَنْ امْرَأَةٍ حَائِضٍ شَرِبَتْ مِنْ مَاءٍ أَيُتَوَضَّأُ بِهِ فَضَحِكَ وَقَالَ نَعَمْ

حدثنا سليمان بن حرب حدثنا حماد بن زيد عن كثير بن شنظير عن الحسن أنه سئل عن امرأة حائض شربت من ماء أيتوضأ به فضحك وقال نعم

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১০৭

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৮. হায়িযগ্রস্ত মহিলা তার স্বামীর চুল আঁচড়ে দিতে পারে

১১০৭. হারাম ইবনু হাকীম তাঁর চাচা আব্দুল্লাহ ইবনু সা’দ রাদ্বিয়াল্লাহু আনহু থেকে বর্ণনা করেন, তিনি বলেন, আমি হায়িযগ্রস্ত মহিলার সাথে আহার করা সম্পর্কে নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম কে জিজ্ঞেস করলাম। তিনি বললেন: “আর তুমি তার সাথে আহার করো।”[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: আহমাদ ৪/৩৪২ ও ৫/২৯৩; তিরমিযী ১৩৩; ইবনু মাজাহ ৬৫১; আবু নুয়াইম, হিলইয়া ৯/৫১; আরও দেখুন, আবু দাউদ ২১২; বাইহাকী ১/৩১২।

তিরমিযী বলেন: ‘এ অনুচ্ছেদে আয়িশা, আনাস রা: …. থেকে হাদীস বর্ণিত আছে। এটি সকল আহলে ইলমগণের মত। তারা হায়িযগ্রস্ত স্ত্রীলোকের সাথে খাওয়াকে দোষণীয় মনে করতেন না….।’

আর এ সম্পর্কে দ্বিতীয় হাদীসটি সামনে ১১১৫ (অনুবাদে ১১০৯) এ আসছে।

بَاب الْحَائِضِ تَمْشُطُ زَوْجَهَا

أَخْبَرَنَا أَحْمَدُ بْنُ الْحَجَّاجِ حَدَّثَنَا عَبْدُ الرَّحْمَنِ بْنُ مَهْدِيٍّ عَنْ مُعَاوِيَةَ بْنِ صَالِحٍ عَنْ الْعَلَاءِ بْنِ الْحَارِثِ عَنْ حَرَامِ بْنِ مُعَاوِيَةَ عَنْ عَمِّهِ عَبْدِ اللَّهِ بْنِ سَعْدٍ قَالَ سَأَلْتُ النَّبِيَّ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ عَنْ مُؤَاكَلَةِ الْحَائِضِ قَالَ وَاكِلْهَا

أخبرنا أحمد بن الحجاج حدثنا عبد الرحمن بن مهدي عن معاوية بن صالح عن العلاء بن الحارث عن حرام بن معاوية عن عمه عبد الله بن سعد قال سألت النبي صلى الله عليه وسلم عن مؤاكلة الحائض قال واكلها

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১০৮

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৮. হায়িযগ্রস্ত মহিলা তার স্বামীর চুল আঁচড়ে দিতে পারে

১১০৮. নাফিঈ’ ইবনু উমার রাদ্বিয়াল্লাহু আনহুমা হতে বর্ণনা করেন যে, তিনি তার কোনো এক দাসীকে মসজিদ হতে জায়নামায নিয়ে আসার নির্দেশ দিতেন, আর সে দাসী বলতো, আমি তো হায়িযগ্রস্ত। তখন তিনি বলতেন, তোমার হায়িয তো আর তোমার হাতে লেগে নেই। তখন সে ওটা নিয়ে আসতো।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: ইবনু আবী শাইবা ২/৩৬০ সহীহ সনদে। আরও দেখুন, আয়িশার হাদীস যা ১১১১ (১১০৫) নং এ গত হয়েছে।

بَاب الْحَائِضِ تَمْشُطُ زَوْجَهَا

أَخْبَرَنَا مُحَمَّدُ بْنُ عُيَيْنَةَ عَنْ عَلِيِّ بْنِ مُسْهِرٍ عَنْ عُبَيْدِ اللَّهِ عَنْ نَافِعٍ عَنْ ابْنِ عُمَرَ أَنَّهُ كَانَ يَأْمُرُ جَارِيَتَهُ أَنْ تُنَاوِلَهُ الْخُمْرَةَ مِنْ الْمَسْجِدِ فَتَقُولُ إِنِّي حَائِضٌ فَيَقُولُ إِنَّ حِيضَتَكِ لَيْسَتْ فِي كَفِّكِ فَتُنَاوِلُهُ

أخبرنا محمد بن عيينة عن علي بن مسهر عن عبيد الله عن نافع عن ابن عمر أنه كان يأمر جاريته أن تناوله الخمرة من المسجد فتقول إني حائض فيقول إن حيضتك ليست في كفك فتناوله

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ নাফি‘ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১০৯

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৮. হায়িযগ্রস্ত মহিলা তার স্বামীর চুল আঁচড়ে দিতে পারে

১১০৯. হারাম ইবনু হাকীম তাঁর চাচা (আব্দুল্লাহ ইবনু সা’দ) রাদ্বিয়াল্লাহু আনহু থেকে বর্ণনা করেন, তিনি বলেন, আমি হায়িযগ্রস্ত মহিলার সাথে আহার করা সম্পর্কে নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম কে জিজ্ঞেস করলাম। তিনি বললেন: “আমার পরিবারের মহিলাদের মধ্যেও কারো হায়িয হয়েছে এবং ইনশা আল্লাহ আমরা রাতে একসাথে আহার করবো।”[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: এটি ১১১৪ (এটিও ভূল, আসলে মুহাক্কিক্বের নুসখায় এটির ক্রম ১১১৩ অনুবাদে ১১০৭) নং এ গত হয়েছে।

بَاب الْحَائِضِ تَمْشُطُ زَوْجَهَا

أَخْبَرَنَا مَرْوَانُ بْنُ مُحَمَّدٍ حَدَّثَنَا الْهَيْثَمُ بْنُ حُمَيْدٍ حَدَّثَنَا الْعَلَاءُ بْنُ الْحَارِثِ عَنْ حَرَامِ بْنِ حَكِيمٍ عَنْ عَمِّهِ قَالَ سَأَلْتُ رَسُولَ اللَّهِ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ عَنْ مُؤَاكَلَةِ الْحَائِضِ فَقَالَ رَسُولُ اللَّهِ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ إِنَّ بَعْضَ أَهْلِي لَحَائِضٌ وَإِنَّا لَمُتَعَشُّونَ إِنْ شَاءَ اللَّهُ جَمِيعًا

أخبرنا مروان بن محمد حدثنا الهيثم بن حميد حدثنا العلاء بن الحارث عن حرام بن حكيم عن عمه قال سألت رسول الله صلى الله عليه وسلم عن مؤاكلة الحائض فقال رسول الله صلى الله عليه وسلم إن بعض أهلي لحائض وإنا لمتعشون إن شاء الله جميعا

 হাদিসের মানঃ তাহকীক অপেক্ষমাণ  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১১০

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৮. হায়িযগ্রস্ত মহিলা তার স্বামীর চুল আঁচড়ে দিতে পারে

১১১০. আব্দুর রহমান ইবনু কাসিম তার পিতা কাসিম রাহি. হতে, তিনি আয়িশা রাদ্বিয়াল্লাহু আনহা হতে বর্ণনা করেন, তিনি হায়িযগ্রস্ত মহিলা কর্তৃক জায়নামায স্পর্শ করাকে দোষণীয় মনে করতেন না।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: আয়িশা রা: পর্যন্ত এর সনদ সহীহ। তবে এটি মাওকুফ।

তাখরীজ: ((মুহাক্বিক্ব এর কোনো তাখরীজ দেননি।-অনুবাদক))

بَاب الْحَائِضِ تَمْشُطُ زَوْجَهَا

أَخْبَرَنَا سَهْلُ بْنُ حَمَّادٍ حَدَّثَنَا شُعْبَةُ عَنْ عَبْدِ الرَّحْمَنِ بْنِ الْقَاسِمِ عَنْ أَبِيهِ عَنْ عَائِشَةَ أَنَّهَا كَانَتْ لَا تَرَى بَأْسًا أَنْ تَمَسَّ الْحَائِضُ الْخُمْرَةَ

أخبرنا سهل بن حماد حدثنا شعبة عن عبد الرحمن بن القاسم عن أبيه عن عائشة أنها كانت لا ترى بأسا أن تمس الحائض الخمرة

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ আব্দুর রহমান ইবনু কাসিম (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১১১

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৯. হায়িযগ্রস্ত মহিলার পবিত্রতা লাভের পর গোসল করার পূর্বেই তার সাথে মিলিত হওয়া প্রসঙ্গে

১১১১. উছমান ইবনুল আসওয়াদ মুজাহিদ রাহি. হতে বর্ণনা করেন ….[1]

(একই সনদে) ইউনূস হাসান রাহি. হতে ….[2]

(একই সনদে) আব্দুল মালিক, আতা রাহি. হতে …..[3]

মুহাম্মদ বলেন: এবং ইয়াহইয়া ইবনু সাঈদ আল কাত্তান, উছমান ইবনুল আসওয়াদ হতে, তিনি মুজাহিদ হতে, (তিনি বলেন,) হায়িযগ্রস্ত মহিলা যখন রক্তস্রাব হতে পবিত্র হবে, এরপর সে গোসল না করা পর্যন্ত তার স্বামী তার নিকটবর্তী হবে না।[4]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: বাইহাকী ১/৩১০; ইবনু আবী শাইবা ১৯৬; তাবারী, আত তাফসীর ২/৩৮৬।

[2] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: ইবনু আবী শাইবা ১/৯৬ হাসান সনদে।

[3] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: ইবনু আবী শাইবা ১/৯৬; আরও দেখুন, মুছান্নাফ আব্দুর রাযযাক নং ১২৪৫, ১২৭৩।

[4] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: ইবনু আবী শাইবা ১/৯৬ সহীহ সনদে; আগের টীকাটিও দেখুন।

بَاب مُجَامَعَةِ الْحَائِضِ إِذَا طَهُرَتْ قَبْلَ أَنْ تَغْتَسِلَ

حَدَّثَنَا مُحَمَّدُ بْنُ عِيسَى حَدَّثَنَا هُشَيْمٌ حَدَّثَنَا مُغِيرَةُ عَنْ إِبْرَاهِيمَ وَيُونُسُ عَنْ الْحَسَنِ وَعَبْدُ الْمَلِكِ عَنْ عَطَاءٍ قَالَ مُحَمَّدٌ وَحَدَّثَنِي يَحْيَى بْنُ سَعِيدٍ الْقَطَّانُ عَنْ عُثْمَانَ بْنِ الْأَسْوَدِ عَنْ مُجَاهِدٍ فِي الْحَائِضِ إِذَا طَهُرَتْ مِنْ الدَّمِ لَا يَقْرَبُهَا زَوْجُهَا حَتَّى تَغْتَسِلَ

حدثنا محمد بن عيسى حدثنا هشيم حدثنا مغيرة عن إبراهيم ويونس عن الحسن وعبد الملك عن عطاء قال محمد وحدثني يحيى بن سعيد القطان عن عثمان بن الأسود عن مجاهد في الحائض إذا طهرت من الدم لا يقربها زوجها حتى تغتسل

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ উসমান ইবনুল আসওয়াদ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১১২

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৯. হায়িযগ্রস্ত মহিলার পবিত্রতা লাভের পর গোসল করার পূর্বেই তার সাথে মিলিত হওয়া প্রসঙ্গে

১১১২. উবাইদুল্লাহ ইবনু মূসা, উছমান ইবনুল আসওয়াদ হতে, তিনি মুজাহিদ হতে, এর অনুরূপ অভিন্ন (মত বর্ণনা করেছেন।)[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: আগের টীকাটি দেখুন। পরবর্তী ১১২২ (অনুবাদে ১১১৬) নং হাদীসটিও দেখুন।

بَاب مُجَامَعَةِ الْحَائِضِ إِذَا طَهُرَتْ قَبْلَ أَنْ تَغْتَسِلَ

حَدَّثَنَا عُبَيْدُ اللَّهِ بْنُ مُوسَى عَنْ عُثْمَانَ بْنِ الْأَسْوَدِ عَنْ مُجَاهِدٍ مِثْلَهُ سَوَاءً

حدثنا عبيد الله بن موسى عن عثمان بن الأسود عن مجاهد مثله سواء

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১১৩

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৯. হায়িযগ্রস্ত মহিলার পবিত্রতা লাভের পর গোসল করার পূর্বেই তার সাথে মিলিত হওয়া প্রসঙ্গে

১১১৩. মুহাম্মদ ইবনু ইউসুফ বলেন, সুফিয়ান রাহি. কে জিজ্ঞেস করা হলো, যখন কোনো স্ত্রীলোকের (হায়িযের) রক্তস্রাব বন্ধ হয়ে যায়, তখন সে গোসল করার পূর্বেই তার স্বামী তার সাথে মিলিত হতে পারবে কি? তিনি বললেন: না। এরপর তাকে বলা হলো, সেই মহিলা যদি দু’দিন বা তারও অধিক দিন গোসল করা পরিত্যাগ করে, তাহলে এ ব্যাপারে আপনার মত কি? তিনি বললেন: তবে তাকে তাওবা করতে বলতে হবে।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: আমি এটি এখানে ব্যতীত অন্য কোথাও পাইনি।

بَاب مُجَامَعَةِ الْحَائِضِ إِذَا طَهُرَتْ قَبْلَ أَنْ تَغْتَسِلَ

حَدَّثَنَا مُحَمَّدُ بْنُ يُوسُفَ قَالَ سُئِلَ سُفْيَانُ أَيُجَامِعُ الرَّجُلُ امْرَأَتَهُ إِذَا انْقَطَعَ عَنْهَا الدَّمُ قَبْلَ أَنْ تَغْتَسِلَ فَقَالَ لَا فَقِيلَ أَرَأَيْتَ إِنْ تَرَكَتْ الْغُسْلَ يَوْمَيْنِ أَوْ أَيَّامًا قَالَ تُسْتَتَابُ

حدثنا محمد بن يوسف قال سئل سفيان أيجامع الرجل امرأته إذا انقطع عنها الدم قبل أن تغتسل فقال لا فقيل أرأيت إن تركت الغسل يومين أو أياما قال تستتاب

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ মুহাম্মাদ ইবনে ইউসুফ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১১৪

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৯. হায়িযগ্রস্ত মহিলার পবিত্রতা লাভের পর গোসল করার পূর্বেই তার সাথে মিলিত হওয়া প্রসঙ্গে

১১১৪. মুহাম্মদ ইবনু ইউসুফ এক ব্যক্তি হতে, যিনি মুজাহিদ থেকে বর্ণনা করেন, আল্লাহর বাণী: “অতঃপর যতক্ষণ তারা পবিত্রতা লাভ না করবে, ততক্ষণ তাদের নিকটবর্তী হয়োনা।” (সূরা বাকারাহ: ২২২) (এ আয়াত সম্পর্কে) তিনি (মুজাহিদ) বলেন, যখন রক্তস্রাব বন্ধ হয়ে যায়। (আল্লাহর বাণী:) “অতঃপর যখন তারা পবিত্রতা লাভ করে” (সুরা বাকারা: ২২২) (এ আয়াতের ব্যাখ্যায়) তিনি বলেন: যখন তারা গোসল করবে।[1]

[1] বিচ্ছিন্নতার কারণে এর সনদ যয়ীফ।

তাখরীজ: পরের হাদীসটি দেখুন।

بَاب مُجَامَعَةِ الْحَائِضِ إِذَا طَهُرَتْ قَبْلَ أَنْ تَغْتَسِلَ

أَخْبَرَنَا مُحَمَّدُ بْنُ يُوسُفَ حَدَّثَنَا سُفْيَانُ عَمَّنْ حَدَّثَهُ عَنْ مُجَاهِدٍ وَلَا تَقْرَبُوهُنَّ حَتَّى يَطْهُرْنَ قَالَ حَتَّى يَنْقَطِعَ الدَّمُ فَإِذَا تَطَهَّرْنَ قَالَ إِذَا اغْتَسَلْنَ

أخبرنا محمد بن يوسف حدثنا سفيان عمن حدثه عن مجاهد ولا تقربوهن حتى يطهرن قال حتى ينقطع الدم فإذا تطهرن قال إذا اغتسلن

 হাদিসের মানঃ যঈফ (Dai’f)  বর্ণনাকারীঃ মুহাম্মাদ ইবনে ইউসুফ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১১৫

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৯. হায়িযগ্রস্ত মহিলার পবিত্রতা লাভের পর গোসল করার পূর্বেই তার সাথে মিলিত হওয়া প্রসঙ্গে

১১১৫. ইবনু নাজীহ হতে বর্ণিত, তিনি মুজাহিদ হতে, (“যতক্ষণ তারা পবিত্রতা লাভ না করবে”) (সূরা বাকারাহ: ২২২) তিনি বলেন: (এর অর্থ) যখন রক্তস্রাব বন্ধ হয়ে যাবে। (“অতঃপর যখন তারা পবিত্রতা লাভ করে…।”) (সুরা বাকারা: ২২২) তিনি বলেন: (এর অর্থ) যখন তারা গোসল করবে।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: তাবারী, আত তাফসীর ২/৩৮৫, ৩৮৬; আব্দুর রাযযাক (বিস্তারিতভাবে) নং ১২৭২; সহীহ সনদে। দেখুন, দুররে মানছুর ২/২৬০।

بَاب مُجَامَعَةِ الْحَائِضِ إِذَا طَهُرَتْ قَبْلَ أَنْ تَغْتَسِلَ

حَدَّثَنَا عُبَيْدُ اللَّهِ بْنُ مُوسَى عَنْ سُفْيَانَ عَنْ ابْنِ أَبِي نَجِيحٍ عَنْ مُجَاهِدٍ حَتَّى يَطْهُرْنَ قَالَ إِذَا انْقَطَعَ الدَّمُ فَإِذَا تَطَهَّرْنَ قَالَ اغْتَسَلْنَ

حدثنا عبيد الله بن موسى عن سفيان عن ابن أبي نجيح عن مجاهد حتى يطهرن قال إذا انقطع الدم فإذا تطهرن قال اغتسلن

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ ইবনু আবী নাজীহ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১১৬

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৯. হায়িযগ্রস্ত মহিলার পবিত্রতা লাভের পর গোসল করার পূর্বেই তার সাথে মিলিত হওয়া প্রসঙ্গে

১১১৬. উছমান ইবনুল আসওয়াদ বলেন, আমি ইবরাহীম রাহি. কে এমন এক মহিলা সম্পর্কে জিজ্ঞেস করলাম যে, পবিত্রাবস্থা দেখতে পেলো। এমতাবস্থায় সে গোসল করার পূর্বে তার স্বামীর জন্য তার সাথে সহবাস করা হালাল কি? তিনি বললেন: না। যতক্ষণ না তার জন্য সালাত আদায় করা জায়িয হয়।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: ইবনু আবী শাইবা ১/৯৬ সহীহ সনদে। দেখুন এরপূর্বের ১১১৭ (অনুবাদে ১১১১) নং হাদীসটি।

بَاب مُجَامَعَةِ الْحَائِضِ إِذَا طَهُرَتْ قَبْلَ أَنْ تَغْتَسِلَ

أَخْبَرَنَا عُبَيْدُ اللَّهِ بْنُ مُوسَى حَدَّثَنَا عُثْمَانُ بْنُ الْأَسْوَدِ قَالَ سَأَلْتُ مُجَاهِدًا عَنْ امْرَأَةٍ رَأَتْ الطُّهْرَ أَيَحِلُّ لِزَوْجِهَا أَنْ يَأْتِيَهَا قَبْلَ أَنْ تَغْتَسِلَ قَالَ لَا حَتَّى تَحِلَّ لَهَا الصَّلَاةُ

أخبرنا عبيد الله بن موسى حدثنا عثمان بن الأسود قال سألت مجاهدا عن امرأة رأت الطهر أيحل لزوجها أن يأتيها قبل أن تغتسل قال لا حتى تحل لها الصلاة

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ উসমান ইবনুল আসওয়াদ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১১৭

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৯. হায়িযগ্রস্ত মহিলার পবিত্রতা লাভের পর গোসল করার পূর্বেই তার সাথে মিলিত হওয়া প্রসঙ্গে

১১১৭. হাজ্জাজ ইবনু আরতাহ বলেন, আমি আতা ও মায়মুন ইবনু মিহরাণ কে প্রশ্ন করে জেনেছিলাম এবং হাম্মাদ ইবরাহীম রাহি. হতে আমার নিকট বর্ণনা করেন, তিনি বলেন,[1] সে (স্বামী) তার (স্ত্রীর) গোসল না করা পর্যন্ত তার সাথে মিলিত হবে না।[2]

[1] ((এটি মুহাক্বিক্বের পরিবর্তন। মুল নুসখা এবং ফাতহুল মান্নানের বর্ণনামতে এখানে, ‘তিনি বললেন’ এর স্থানে ‘তারা বললেন’ রয়েছে। ফলে ফাতহুল মান্নানে, এটিকে আতা, মাইমুন ইবনু মিহরাণ ও ইবরাহীম- এ তিনজেনের মত আলাদাভাবে তিনটি হাদীস হিসেবে বর্ণনা করা হয়েছে। কিন্তু আমরা মুহাক্বিক্বের বর্ণনা অনুযায়ী, একটি হাদীস হিসেবে এবং আতা, মাইমুন ইবনু মিহরাণ ও হাম্মাদ হতে ইবরাহীম রাহি. এর মত হিসেবে বর্ণিত হয়েছে, আমরা সেভাবেই অনুবাদ করলাম।- অনুবাদক))

[2] তাহক্বীক্ব: হাদীসটি সহীহ।

তাখরীজ: এটি ১১১৭ (অনুবাদে ১১১১) নং এ গত হয়েছে। পরবর্তী ১১২৭ (১১২১) নং হাদীসটিও দেখুন।

بَاب مُجَامَعَةِ الْحَائِضِ إِذَا طَهُرَتْ قَبْلَ أَنْ تَغْتَسِلَ

أَخْبَرَنَا الْمُعَلَّى بْنُ أَسَدٍ حَدَّثَنَا عَبْدُ الْوَاحِدِ هُوَ ابْنُ زِيَادٍ حَدَّثَنَا الْحَجَّاجُ بْنُ أَرْطَاةَ قَالَ سَأَلْتُ عَطَاءً وَمَيْمُونَ بْنَ مِهْرَانَ وَحَدَّثَنِي حَمَّادٌ عَنْ إِبْرَاهِيمَ قَالُوا لَا يَغْشَاهَا حَتَّى تَغْتَسِلَ

أخبرنا المعلى بن أسد حدثنا عبد الواحد هو ابن زياد حدثنا الحجاج بن أرطاة قال سألت عطاء وميمون بن مهران وحدثني حماد عن إبراهيم قالوا لا يغشاها حتى تغتسل

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ হাজ্জাজ ইবনু আরতাহ  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১১৮

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৯. হায়িযগ্রস্ত মহিলার পবিত্রতা লাভের পর গোসল করার পূর্বেই তার সাথে মিলিত হওয়া প্রসঙ্গে

১১১৮. হিশাম হতে বর্ণিত, এক মহিলা পবিত্রাবস্থা দেখতে পেয়েছে, এমতাবস্থায় সে গোসল করার পূর্বে তার স্বামী তার সাথে সহবাস করলো। এ সম্পর্কে হাসান রাহি. বলেন, সে তো গোসল করার পূর্ব পর্যন্ত হায়িযগ্রস্ত বলে গণ্য। আর সে লোকটির উপর কাফ্ফারা ওয়াজিব হবে। আর তার স্ত্রীর গোসল না করা পর্যন্ত সে তার স্ত্রীর নিকট প্রত্যাগমন করতে পারবে না।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: এটি ১১১৭ (অনুবাদে ১১১১) নং এ গত হয়েছে।

بَاب مُجَامَعَةِ الْحَائِضِ إِذَا طَهُرَتْ قَبْلَ أَنْ تَغْتَسِلَ

أَخْبَرَنَا يَزِيدُ بْنُ هَارُونَ عَنْ هِشَامٍ عَنْ الْحَسَنِ فِي الرَّجُلِ يَطَأُ امْرَأَتَهُ وَقَدْ رَأَتْ الطُّهْرَ قَبْلَ أَنْ تَغْتَسِلَ قَالَ هِيَ حَائِضٌ مَا لَمْ تَغْتَسِلْ وَعَلَيْهِ الْكَفَّارَةُ وَلَهُ أَنْ يُرَاجِعَهَا مَا لَمْ تَغْتَسِلْ

أخبرنا يزيد بن هارون عن هشام عن الحسن في الرجل يطأ امرأته وقد رأت الطهر قبل أن تغتسل قال هي حائض ما لم تغتسل وعليه الكفارة وله أن يراجعها ما لم تغتسل

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ হিশাম ইবন হাসান (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১১৯

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৯. হায়িযগ্রস্ত মহিলার পবিত্রতা লাভের পর গোসল করার পূর্বেই তার সাথে মিলিত হওয়া প্রসঙ্গে

১১১৯. ইউনুস থেকে বর্ণিত, হাসান রাহি. বলেন, তার স্বামী তার সাথে সহবাস করতে পারবে না (স্ত্রীর গোসল করার পূর্বে)।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: তাবারী, আত তাফসীর ২/৩৮৬ এবং এতে অতিরিক্ত রয়েছে যে, ‘যতক্ষণ সে গোসল না করে এবং তার জন্য সালাত আদায় করা হালাল না হয়।’ এর সনদও সহীহ। আরও দেখুন, ১১১৭ (অনুবাদে ১১১১) নং এ গত হয়েছে।

بَاب مُجَامَعَةِ الْحَائِضِ إِذَا طَهُرَتْ قَبْلَ أَنْ تَغْتَسِلَ

أَخْبَرَنَا الْمُعَلَّى بْنُ أَسَدٍ حَدَّثَنَا عَبْدُ الْوَاحِدِ حَدَّثَنَا يُونُسُ عَنْ الْحَسَنِ قَالَ لَا يَغْشَاهَا زَوْجُهَا

أخبرنا المعلى بن أسد حدثنا عبد الواحد حدثنا يونس عن الحسن قال لا يغشاها زوجها

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ ইউনুস (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১২০

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৯. হায়িযগ্রস্ত মহিলার পবিত্রতা লাভের পর গোসল করার পূর্বেই তার সাথে মিলিত হওয়া প্রসঙ্গে

১১২০. আবুল খায়ের মারছাদ ইবনু আব্দুল্লাহ হতে বর্ণিত, তিনি বলেন, আমি উক্ববাহ ইবনু আমির আল জুহানী রাদ্বিয়াল্লাহু আনহু কে বলতে শুনেছি, আল্লাহর কসম! যেই দিনে আমার স্ত্রী পবিত্রতা লাভ করে, সেই দিনেই আমি আমার স্ত্রীর সাথে মিলিত হই না, যতক্ষণ একদিন গত না হয়।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: আমি এটি আর কোথাও পাইনি।

بَاب مُجَامَعَةِ الْحَائِضِ إِذَا طَهُرَتْ قَبْلَ أَنْ تَغْتَسِلَ

أَخْبَرَنَا عَبْدُ اللَّهِ بْنُ يَزِيدَ حَدَّثَنَا حَيْوَةُ بْنُ شُرَيْحٍ قَالَ سَمِعْتُ يَزِيدَ بْنَ أَبِي حَبِيبٍ يَقُولُ قَالَ أَبُو الْخَيْرِ مَرْثَدُ بْنُ عَبْدِ اللَّهِ الْيَزَنِيُّ قَالَ سَمِعْتُ عُقْبَةَ بْنَ عَامِرٍ الْجُهَنِيَّ يَقُولُ وَاللَّهِ إِنِّي لَا أُجَامِعُ امْرَأَتِي فِي الْيَوْمِ الَّذِي تَطْهُرُ فِيهِ حَتَّى يَمُرَّ يَوْمٌ

أخبرنا عبد الله بن يزيد حدثنا حيوة بن شريح قال سمعت يزيد بن أبي حبيب يقول قال أبو الخير مرثد بن عبد الله اليزني قال سمعت عقبة بن عامر الجهني يقول والله إني لا أجامع امرأتي في اليوم الذي تطهر فيه حتى يمر يوم

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ মারসাদ ইবনু ‘আবদুল্লাহ্ ইয়াযানী (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১২১

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৯. হায়িযগ্রস্ত মহিলার পবিত্রতা লাভের পর গোসল করার পূর্বেই তার সাথে মিলিত হওয়া প্রসঙ্গে

১১২১. আব্দুল মালিক বর্ণনা করেন, কোনো এক মহিলা পবিত্রাবস্থা দেখতে পেলো। এমতাবস্থায় সে গোসল করার পূর্বে তার স্বামী তার সাথে সহবাস করতে পারবে কি? আতা রাহি. বললেন: না। যতক্ষণ না সে (স্ত্রী) গোসল করবে।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: হাদীসটি সহীহ।

তাখরীজ: এটি ১১১৭, ১১২৩ (অনুবাদে ১১১১, ১১১৭) নং এ গত হয়েছে। এছাড়া মুছান্নাফ আব্দুর রাযযাক ১২৪৫ নং হাদীসটি দেখুন।

بَاب مُجَامَعَةِ الْحَائِضِ إِذَا طَهُرَتْ قَبْلَ أَنْ تَغْتَسِلَ

أَخْبَرَنَا يَعْلَى بْنُ عُبَيْدٍ حَدَّثَنَا عَبْدُ الْمَلِكِ عَنْ عَطَاءٍ فِي الْمَرْأَةِ تَرَى الطُّهْرَ أَيَأْتِيهَا زَوْجُهَا قَبْلَ أَنْ تَغْتَسِلَ قَالَ لَا حَتَّى تَغْتَسِلَ

أخبرنا يعلى بن عبيد حدثنا عبد الملك عن عطاء في المرأة ترى الطهر أيأتيها زوجها قبل أن تغتسل قال لا حتى تغتسل

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ আব্দুল মালিক (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১২২

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৯. হায়িযগ্রস্ত মহিলার পবিত্রতা লাভের পর গোসল করার পূর্বেই তার সাথে মিলিত হওয়া প্রসঙ্গে

১১২২. লাইছ ইবনু আবী সুলায়ম হতে, তিনি আতা হতে, কোনো মহিলার (হায়িযের) রক্তস্রাব বন্ধ হলো-এ সম্পর্কে তিনি (আতা) বলেন: যদি কামাসক্তি স্বামীকে পেয়ে বসে, তবে সে (স্ত্রী) তার গোপনাঙ্গ ধৌত করবে, তারপর তার স্বামী তার সাথে মিলিত হবে।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ যয়ীফ, লাইছ ইবনু আবী সুলায়ম যয়ীফ।

তাখরীজ: ইবনু আবী শাইবা ১/৯৬।

بَاب مُجَامَعَةِ الْحَائِضِ إِذَا طَهُرَتْ قَبْلَ أَنْ تَغْتَسِلَ

أَخْبَرَنَا أَبُو النُّعْمَانِ حَدَّثَنَا أَبُو عَوَانَةَ عَنْ لَيْثِ بْنِ أَبِي سُلَيْمٍ عَنْ عَطَاءٍ فِي الْمَرْأَةِ يَنْقَطِعُ عَنْهَا الدَّمُ قَالَ إِنْ أَدْرَكَهُ الشَّبَقُ غَسَلَتْ فَرْجَهَا ثُمَّ أَتَاهَا

أخبرنا أبو النعمان حدثنا أبو عوانة عن ليث بن أبي سليم عن عطاء في المرأة ينقطع عنها الدم قال إن أدركه الشبق غسلت فرجها ثم أتاها

 হাদিসের মানঃ যঈফ (Dai’f)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১২৩

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১০৯. হায়িযগ্রস্ত মহিলার পবিত্রতা লাভের পর গোসল করার পূর্বেই তার সাথে মিলিত হওয়া প্রসঙ্গে

১১২৩. ফুরওয়াহ ইবনু আবীল মাগরা’আ বলেন, আমি শারীক হতে শুনেছি, এক ব্যক্তি তাকে একথা জিজ্ঞেস করলো যে, এক স্ত্রীলোকের রক্তস্রাব বন্ধ হয়ে গেছে। এমতাবস্থায় সে গোসল করার পূর্বে তার স্বামী তার সাথে সহবাস করতে পারবে কি? তিনি বললেন, আব্দুল মালিক আতা রাহি. হতে বর্ণনা করেছেন যে, কামাসক্তি (এর আধিক্য)-এর কারণে তিনি (আতা) এ ব্যাপারে অনুমতি দিয়েছেন।[1]

আবু মুহাম্মদ বলেন, আমার আশংকা হয় যে, তিনি ভূল করেছেন। আমার আরও আশংকা হলো, এটি লাইছের হাদীস (যেটি পূর্বে বর্ণিত হয়েছে), আব্দুল মালিকের এ হাদীস আমি জানি না। আবু মুহাম্মদ (দারিমী) বলেন, الشبق : যে ব্যক্তি (নারীসঙ্গ) কামনা করে।

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ হাসান।

তাখরীজ: ((মুহাক্বিক্ব এর কোনো তাখরীজ দেননি।-অনুবাদক))

بَاب مُجَامَعَةِ الْحَائِضِ إِذَا طَهُرَتْ قَبْلَ أَنْ تَغْتَسِلَ

أَخْبَرَنَا فَرْوَةُ بْنُ أَبِي الْمَغْرَاءِ قَالَ سَمِعْتُ شَرِيكًا وَسَأَلَهُ رَجُلٌ فَقَالَ الْمَرْأَةُ يَنْقَطِعُ عَنْهَا الدَّمُ أَيَأْتِيهَا زَوْجُهَا قَبْلَ أَنْ تَغْتَسِلَ فَقَالَ قَالَ عَبْدُ الْمَلِكِ عَنْ عَطَاءٍ أَنَّهُ رَخَّصَ فِي ذَلِكَ لِلشَّبِقِ قَالَ أَبُو مُحَمَّد أَخَافُ أَنْ يَكُونَ ذَا خَطَأً أَخَافُ أَنْ يَكُونَ مِنْ حَدِيثِ لَيْثٍ لَا أَعْرِفُهُ مِنْ حَدِيثِ عَبْدِ الْمَلِكِ قَالَ أَبُو مُحَمَّد الشَّبِقُ الَّذِي يَشْتَهِي

أخبرنا فروة بن أبي المغراء قال سمعت شريكا وسأله رجل فقال المرأة ينقطع عنها الدم أيأتيها زوجها قبل أن تغتسل فقال قال عبد الملك عن عطاء أنه رخص في ذلك للشبق قال أبو محمد أخاف أن يكون ذا خطأ أخاف أن يكون من حديث ليث لا أعرفه من حديث عبد الملك قال أبو محمد الشبق الذي يشتهي

 হাদিসের মানঃ হাসান (Hasan)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১২৪

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১০. হায়িযগ্রস্ত মহিলার খিযাব ব্যবহার করা ও খিযাব ব্যবহার করে মহিলার সালাত আদায় করা

১১২৪. আবী হুররাহ ওয়াসিল ইবনু আব্দুর রহমান হতে বর্ণিত, হাসান রাহি. বলেন, আমি মদীনার নারীদেরকে দেখেছি, তারা খিযাব লাগানো অবস্থায় সালাত আদায় করে।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ যয়ীফ। হুশাইম মুদাল্লিস, আর এটি সে ‘আন‘আন’ পদ্ধতিতে বর্ণনা করেছেন। এছাড়া আবু হুররাহ সম্পর্কে বুখারী রা. বলেছেন: ‘হাসান হতে তার বর্ণিত হাদীসের ব্যাপারে সমালোচনা রয়েছে।’ আহমদ রাহি. বলেছেন:…. সে হাসান হতে শোনেননি।

তাখরীজ: ((মুহাক্বিক্ব এর কোনো তাখরীজ দেননি।-অনুবাদক))

بَاب فِي الْمَرْأَةِ الْحَائِضِ تَخْتَضِبُ وَالْمَرْأَةِ تُصَلِّي فِي الْخِضَابِ

أَخْبَرَنَا مُحَمَّدُ بْنُ عِيسَى قَالَ زَعَمَ لَنَا هُشَيْمٌ عَنْ أَبِي حُرَّةَ وَاصِلِ بْنِ عَبْدِ الرَّحْمَنِ عَنْ الْحَسَنِ قَالَ رَأَيْتُ نِسَاءً مِنْ نِسَاءِ الْمَدِينَةِ يُصَلِّينَ فِي الْخِضَابِ

أخبرنا محمد بن عيسى قال زعم لنا هشيم عن أبي حرة واصل بن عبد الرحمن عن الحسن قال رأيت نساء من نساء المدينة يصلين في الخضاب

 হাদিসের মানঃ যঈফ (Dai’f)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১২৫

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১০. হায়িযগ্রস্ত মহিলার খিযাব ব্যবহার করা ও খিযাব ব্যবহার করে মহিলার সালাত আদায় করা

১১২৫. আবী নাজিহ কর্তৃক এক ব্যক্তি হতে বর্ণিত, তিনি শুনেছেন, আয়িশা রাদ্বিয়াল্লাহু আনহা’কে এমন এক মহিলা সম্পর্কে প্রশ্ন করা হলো যে খিযাব লাগায়। তখন তিনি বললেন: বরং ছুরি দিয়ে হাত কেটে ফেলাও আমার নিকট এর চেয়ে অধিক পছন্দনীয়।[1]

[1] এর সনদে জাহালত (অজ্ঞাত পরিচয় রাবী) রয়েছে। ((আবী নাজীহ ও আয়িশা রা: এর মাঝে একজন রাবী রয়েছে যার নাম উল্লেখ করা হয়নি।-অনুবাদক))

তাখরীজ: ইবনু আবী শাইবা ১/১২০; বাইহাকী ১/৭৭;

بَاب فِي الْمَرْأَةِ الْحَائِضِ تَخْتَضِبُ وَالْمَرْأَةِ تُصَلِّي فِي الْخِضَابِ

أَخْبَرَنَا سَعِيدُ بْنُ عَامِرٍ عَنْ شُعْبَةَ عَنْ ابْنِ أَبِي نَجِيحٍ عَمَّنْ سَمِعَ عَائِشَةَ سُئِلَتْ عَنْ الْمَرْأَةِ تَمْسَحُ عَلَى الْخِضَابِ فَقَالَتْ لَأَنْ تُقْطَعَ يَدِي بِالسَّكَاكِينِ أَحَبُّ إِلَيَّ مِنْ ذَلِكَ

أخبرنا سعيد بن عامر عن شعبة عن ابن أبي نجيح عمن سمع عائشة سئلت عن المرأة تمسح على الخضاب فقالت لأن تقطع يدي بالسكاكين أحب إلي من ذلك

 হাদিসের মানঃ যঈফ (Dai’f)  বর্ণনাকারীঃ ইবনু আবী নাজীহ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১২৬

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১০. হায়িযগ্রস্ত মহিলার খিযাব ব্যবহার করা ও খিযাব ব্যবহার করে মহিলার সালাত আদায় করা

১১২৬. আবী সাঈদ হতে বর্ণিত, এক মহিলা আয়িশা রাদ্বিয়াল্লাহু আনহাকে জিজ্ঞেস করলেন যে, কোনো এক মহিলা খিযাব লাগিয়ে সালাত আদায় করে। (এর হুকুম কি?) তিনি বললেন: জোর করে হলেও তা ধুয়ে তুলে ফেলো।[1]আবু মুহাম্মদ বলেন: আবু সাঈদ হলেন ইবনু আবীল আম্বাস। আর আবীল আম্বাসের নাম সাঈদ ইবনু কাছীর ইবনু উবাইদ।

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ জাইয়্যেদ।

তাখরীজ: ইবনু আবী শাইবা ১/১১৯; বাইহাকী ১/৭৭; দেখুন, আবী উবাইদ, গারীবুল হাদীস ৪/৩২৬ …।

بَاب فِي الْمَرْأَةِ الْحَائِضِ تَخْتَضِبُ وَالْمَرْأَةِ تُصَلِّي فِي الْخِضَابِ

أَخْبَرَنَا سَعِيدُ بْنُ عَامِرٍ عَنْ ابْنِ عَوْنٍ عَنْ أَبِي سَعِيدٍ أَنَّ امْرَأَةً سَأَلَتْ عَائِشَةَ تُصَلِّي الْمَرْأَةُ فِي الْخِضَابِ قَالَتْ اسْلُتِيهِ وَرَغْمًا قَالَ أَبُو مُحَمَّد أَبُو سَعِيدٍ هُوَ ابْنُ أَبِي الْعَنَبْسِ وَاسْمُ أَبِي الْعَنَبْسِ سَعِيدُ بْنُ كَثِيرِ بْنِ عُبَيْدٍ

أخبرنا سعيد بن عامر عن ابن عون عن أبي سعيد أن امرأة سألت عائشة تصلي المرأة في الخضاب قالت اسلتيه ورغما قال أبو محمد أبو سعيد هو ابن أبي العنبس واسم أبي العنبس سعيد بن كثير بن عبيد

 হাদিসের মানঃ হাসান (Hasan)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১২৭

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১০. হায়িযগ্রস্ত মহিলার খিযাব ব্যবহার করা ও খিযাব ব্যবহার করে মহিলার সালাত আদায় করা

১১২৭. আবী মিজলায হতে বর্ণিত, ইবনু আব্বাস রাদ্বিয়াল্লাহু আনহুমা বলেন, আমাদের স্ত্রীগণ রাত্রি বেলায় খিযাব লাগাত, এরপর যখন সকাল হতো, তখন তারা তা তুলে ফেলতো, অতঃপর ওযু করে সালাত আদায় করতো। তারপর সালাতের পরে তারা পূণরায় খিযাব লাগাতো, তারপর যখন যুহরের সময় নিকটবর্তী হতো, তখন তারা তা তুলে ফেলতো, অতঃপর ওযু করে সালাত আদায় করতো। খিযাব (রং) ও হতো সুন্দরতর, আর তা সালাত হতেও বিরত রাখতো না।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: ইবনু আবী শাইবা ১/১২০; বাইহাকী ১/৭৭; আব্দুর রাযযাক নং ৭৯৩০; এটি সামনে ১১৩৫ (অনুবাদে ১১২৯) নং এও আসছে।

بَاب فِي الْمَرْأَةِ الْحَائِضِ تَخْتَضِبُ وَالْمَرْأَةِ تُصَلِّي فِي الْخِضَابِ

أَخْبَرَنَا عَفَّانُ حَدَّثَنَا أَبُو عَوَانَةَ عَنْ قَتَادَةَ عَنْ أَبِي مِجْلَزٍ عَنْ ابْنِ عَبَّاسٍ قَالَ كُنَّ نِسَاؤُنَا يَخْتَضِبْنَ بِاللَّيْلِ فَإِذَا أَصْبَحْنَ فَتَحْنَهُ فَتَوَضَّأْنَ وَصَلَّيْنَ ثُمَّ يَخْتَضِبْنَ بَعْدَ الصَّلَاةِ فَإِذَا كَانَ عِنْدَ الظُّهْرِ فَتَحْنَهُ فَتَوَضَّأْنَ وَصَلَّيْنَ فَأَحْسَنَّ خِضَابَهُ وَلَا يَمْنَعُ مِنْ الصَّلَاةِ

أخبرنا عفان حدثنا أبو عوانة عن قتادة عن أبي مجلز عن ابن عباس قال كن نساؤنا يختضبن بالليل فإذا أصبحن فتحنه فتوضأن وصلين ثم يختضبن بعد الصلاة فإذا كان عند الظهر فتحنه فتوضأن وصلين فأحسن خضابه ولا يمنع من الصلاة

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১২৮

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১০. হায়িযগ্রস্ত মহিলার খিযাব ব্যবহার করা ও খিযাব ব্যবহার করে মহিলার সালাত আদায় করা

১১২৮. নাফিঈ’ রাহি. হতে বর্ণিত, ইবনু উমার রাদ্বিয়াল্লাহু আনহুমার স্ত্রীগণ খিযাব লাগাতেন, অথচ তখন তারা হায়িযগ্রস্ত থাকতেন।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: আমি এটি এখানে ব্যতীত আর কোথাও পাইনি।

بَاب فِي الْمَرْأَةِ الْحَائِضِ تَخْتَضِبُ وَالْمَرْأَةِ تُصَلِّي فِي الْخِضَابِ

حَدَّثَنَا حَجَّاجٌ حَدَّثَنَا حَمَّادٌ عَنْ أَيُّوبَ عَنْ نَافِعٍ أَنَّ نِسَاءَ ابْنِ عُمَرَ كُنَّ يَخْتَضِبْنَ وَهُنَّ حُيَّضٌ

حدثنا حجاج حدثنا حماد عن أيوب عن نافع أن نساء ابن عمر كن يختضبن وهن حيض

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ নাফি‘ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১২৯

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১০. হায়িযগ্রস্ত মহিলার খিযাব ব্যবহার করা ও খিযাব ব্যবহার করে মহিলার সালাত আদায় করা

১১২৯. (অপর সনদে) আবী মিজলায হতে বর্ণিত, ইবনু আব্বাস রাদ্বিয়াল্লাহু আনহুমা বলেন, আমাদের স্ত্রীগণ যখন সর্বশেষ সালাত ঈশা’ আদায় করতো, তখন তারা খিযাব লাগাত। এরপর যখন সকাল হতো, তখন তারা তা তুলে ফেলতো, অতঃপর ওযু করে সালাত আদায় করতো। তারপর যখন ‍যুহরের সালাত আদায় করতো, তখন তারা পূণরায় খিযাব লাগাতো, তারপর যখন আসরের সালাত আদায়ের ইচ্ছা করতো, তখন তারা তা তুলে ফেলতো। ফলে খিযাব (রং) ও হতো সুন্দরতর, আর তা সালাত হতেও তাদেরকে বিরত রাখতো না।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: এটি ১১৩৩(অনুবাদে ১১২৭) নং এ গত হয়েছে।

بَاب فِي الْمَرْأَةِ الْحَائِضِ تَخْتَضِبُ وَالْمَرْأَةِ تُصَلِّي فِي الْخِضَابِ

حَدَّثَنَا مُسْلِمُ بْنُ إِبْرَاهِيمَ حَدَّثَنَا هِشَامٌ حَدَّثَنَا قَتَادَةُ عَنْ أَبِي مِجْلَزٍ عَنْ ابْنِ عَبَّاسٍ قَالَ كُنَّ نِسَاؤُنَا إِذَا صَلَّيْنَ الْعِشَاءَ الْآخِرَةَ اخْتَضَبْنَ فَإِذَا أَصْبَحْنَ أَطْلَقْنَهُ وَتَوَضَّأْنَ وَصَلَّيْنَ وَإِذَا صَلَّيْنَ الظُّهْرَ اخْتَضَبْنَ فَإِذَا أَرَدْنَ أَنْ يُصَلِّينَ الْعَصْرَ أَطْلَقْنَهُ فَأَحْسَنَّ خِضَابَهُ وَلَا يَحْبِسُ عَنْ الصَّلَاةِ

حدثنا مسلم بن إبراهيم حدثنا هشام حدثنا قتادة عن أبي مجلز عن ابن عباس قال كن نساؤنا إذا صلين العشاء الآخرة اختضبن فإذا أصبحن أطلقنه وتوضأن وصلين وإذا صلين الظهر اختضبن فإذا أردن أن يصلين العصر أطلقنه فأحسن خضابه ولا يحبس عن الصلاة

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৩০

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১১. যখন কোনো লোক তার হায়িযগ্রস্ত স্ত্রীর সাথে মিলিত হয়

১১৩০. মুগীরাহ ইবরাহীম রাহি. হতে বর্ণনা করেন, …..[1]

এবং ইসমাঈল ইবনু আবী খালিদ, আমীর রাহি. হতে বর্ণনা করেন, তারা উভয়ে বলেন, তা (তার সাথে মিলিত হওয়া) গুনাহের কাজ হয়েছে। সে আল্লাহর নিকট ক্ষমা প্রার্থনা করবে এবং তাঁর নিকট তাওবা করবে। আর সে এ কাজের পুনরাবৃত্তি করবে না।[2]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: ইবনু আবী শাইবা ১/৪/৩২; আব্দুর রাযযাক নং ১২৬৮ ইবরাহীম বলেন, তার উপর কোনো কিছুই ওয়াজিব নয়। সে আল্লাহর নিকট ক্ষমা প্রার্থনা (ইস্তিগফার) করবে।’ এর সনদ সহীহ।

[2] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: ইবনু আবী শাইবা ১/৪/৩২।

بَاب إِذَا أَتَى الرَّجُلُ امْرَأَتَهُ وَهِيَ حَائِضٌ

أَخْبَرَنَا مُحَمَّدُ بْنُ عِيسَى حَدَّثَنَا هُشَيْمٌ أَخْبَرَنَا مُغِيرَةُ عَنْ إِبْرَاهِيمَ ح وَأَخْبَرَنَا إِسْمَعِيلُ بْنُ أَبِي خَالِدٍ عَنْ عَامِرٍ فِيمَنْ أَتَى أَهْلَهُ وَهِيَ حَائِضٌ قَالَا ذَنْبٌ أَتَاهُ يَسْتَغْفِرُ اللَّهَ وَيَتُوبُ إِلَيْهِ وَلَا يَعُودُ

أخبرنا محمد بن عيسى حدثنا هشيم أخبرنا مغيرة عن إبراهيم ح وأخبرنا إسمعيل بن أبي خالد عن عامر فيمن أتى أهله وهي حائض قالا ذنب أتاه يستغفر الله ويتوب إليه ولا يعود

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ মুগীরাহ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৩১

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১১. যখন কোনো লোক তার হায়িযগ্রস্ত স্ত্রীর সাথে মিলিত হয়

১১৩১. মুছান্না হতে বর্ণিত, আতা রাহি. হতেও অনুরূপ বর্ণিত হয়েছে।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ যয়ীফ। কিন্তু হাদীসটি শাহিদ থাকার কারণে সহীহ।

তাখরীজ: ইবনু আবী শাইবা ১/৪/৩২।

এর শাহিদ বর্ণনা করেছেন, আব্দুর রাযযাক নং ১২৬৯ ইবনু জুরাইজ হতে, তিনি মুদাল্লিস এবং এটি আনআন পদ্ধতিতে বর্ণনা করায় এটি যয়ীফ। এটি সামনে ১১৪০ (অনুবাদে ১১৩৬) নং এ আসছে।

بَاب إِذَا أَتَى الرَّجُلُ امْرَأَتَهُ وَهِيَ حَائِضٌ

أَخْبَرَنَا مُحَمَّدُ بْنُ عِيسَى حَدَّثَنَا يَحْيَى بْنُ أَبِي زَائِدَةَ عَنْ الْمُثَنَّى عَنْ عَطَاءٍ مِثْلَهُ

أخبرنا محمد بن عيسى حدثنا يحيى بن أبي زائدة عن المثنى عن عطاء مثله

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৩২

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১১. যখন কোনো লোক তার হায়িযগ্রস্ত স্ত্রীর সাথে মিলিত হয়

১১৩২. ‍মুহাম্মদ ইবনু যাইদ হতে বর্ণিত, সাঈদ ইবনু জুবাইর বলেন, তা (তার সাথে মিলিত হওয়া) গুনাহের কাজ হয়েছে। কিন্তু তার উপর কাফফারা ওয়াজিব নয়।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ্।

তাখরীজ: ইবনু আবী শাইবা ১/৪/৩২।

بَاب إِذَا أَتَى الرَّجُلُ امْرَأَتَهُ وَهِيَ حَائِضٌ

حَدَّثَنَا مُحَمَّدُ بْنُ عِيسَى وَأَبُو النُّعْمَانِ قَالَا حَدَّثَنَا عَبْدُ اللَّهِ بْنُ الْمُبَارَكِ عَنْ يَعْقُوبَ بْنِ الْقَعْقَاعِ عَنْ مُحَمَّدِ بْنِ زَيْدٍ عَنْ سَعِيدِ بْنِ جُبَيْرٍ قَالَ ذَنْبٌ أَتَاهُ وَلَيْسَ عَلَيْهِ كَفَّارَةٌ

حدثنا محمد بن عيسى وأبو النعمان قالا حدثنا عبد الله بن المبارك عن يعقوب بن القعقاع عن محمد بن زيد عن سعيد بن جبير قال ذنب أتاه وليس عليه كفارة

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৩৩

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১১. যখন কোনো লোক তার হায়িযগ্রস্ত স্ত্রীর সাথে মিলিত হয়

১১৩৩. আব্দুর রহমান ইবনুল কাসিম তার পিতা কাসিম রাহি. হতে বর্ণনা করেন, তাকে এমন ব্যক্তি সম্পর্কে জিজ্ঞাসা করা হয়েছিল যে তার স্ত্রীর হায়িযগ্রস্ত অবস্থায় তার সাথে মিলিত হয়। তিনি বলেন: সে আল্লাহর নিকট ক্ষমা প্রার্থনা করবে এবং আল্লাহর নিকট তাওবা করবে।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: ইবনু আবী শাইবা ১/৪/৩২।

بَاب إِذَا أَتَى الرَّجُلُ امْرَأَتَهُ وَهِيَ حَائِضٌ

أَخْبَرَنَا مُحَمَّدُ بْنُ عِيسَى حَدَّثَنَا يَحْيَى بْنُ سَعِيدٍ عَنْ عُبَيْدِ اللَّهِ بْنِ عُمَرَ عَنْ عَبْدِ الرَّحْمَنِ بْنِ الْقَاسِمِ عَنْ أَبِيهِ أَنَّهُ سُئِلَ عَنْ الَّذِي يَأْتِي امْرَأَتَهُ وَهِيَ حَائِضٌ قَالَ يَعْتَذِرُ إِلَى اللَّهِ وَيَتُوبُ إِلَى اللَّهِ

أخبرنا محمد بن عيسى حدثنا يحيى بن سعيد عن عبيد الله بن عمر عن عبد الرحمن بن القاسم عن أبيه أنه سئل عن الذي يأتي امرأته وهي حائض قال يعتذر إلى الله ويتوب إلى الله

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ আব্দুর রহমান ইবনু কাসিম (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৩৪

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১১. যখন কোনো লোক তার হায়িযগ্রস্ত স্ত্রীর সাথে মিলিত হয়

১১৩৪. ইবনু জুরাইজ হতে বর্ণিত, আতা রাহি. বলেন, ’তুমি আল্লাহর নিকট ক্ষমা প্রার্থনা করবে এবং তোমার উপর আর কোনো কিছু (কাফফারা) ওয়াজিব নয়।’ (রাবী বলেন) এর অর্থ: যখন সে (কোনো ব্যক্তি) তার হায়িযগ্রস্ত স্ত্রীর সাথে মিলিত হবে।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ যয়ীফ।

তাখরীজ: এটি ১১৩৭ (অনুবাদে ১১৩১) নং এ গত হয়েছে।

بَاب إِذَا أَتَى الرَّجُلُ امْرَأَتَهُ وَهِيَ حَائِضٌ

حَدَّثَنَا مُحَمَّدُ بْنُ يُوسُفَ حَدَّثَنَا سُفْيَانُ عَنْ ابْنِ جُرَيْجٍ عَنْ عَطَاءٍ قَالَ تَسْتَغْفِرُ اللَّهَ وَلَيْسَ عَلَيْكَ شَيْءٌ يَعْنِي إِذَا وَقَعَ عَلَى امْرَأَتِهِ وَهِيَ حَائِضٌ

حدثنا محمد بن يوسف حدثنا سفيان عن ابن جريج عن عطاء قال تستغفر الله وليس عليك شيء يعني إذا وقع على امرأته وهي حائض

 হাদিসের মানঃ যঈফ (Dai’f)  বর্ণনাকারীঃ ইবনু জুরায়জ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৩৫

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১১. যখন কোনো লোক তার হায়িযগ্রস্ত স্ত্রীর সাথে মিলিত হয়

১১৩৫. মালিক ইবনু খাত্তাব আল আম্বারী হতে বর্ণিত, ইবনু আবী মুলাইকা রাহি. বলেন, আমি শুনলাম, তাকে এমন এক ব্যক্তি সম্পর্কে জিজ্ঞাসা করা হলো যে তার স্ত্রীর হায়িযগ্রস্ত অবস্থায় তার সাথে মিলিত হয়। তিনি বললেন: সে আল্লাহর নিকট ক্ষমা প্রার্থনা করবে।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: মালিক ইবনু খাত্তাব সম্পর্কে বুখারী, আল কাবীর ৭/৩০৯ এ উল্লেখ করেছেন এবং তার প্রশংসা বা সমালোচনা কোনোটাই উল্লেখ করেননি। আর আমি তার জীবনী অন্য কোথাও পাইনি। অন্যান্য রাবী গণ নির্ভরযোগ্য। তবে হাদীসটি শাহিদ থাকার কারণে সহীহ।

তাখরীজ: ((মুহাক্বিক্ব এর কোনো তাখরীজ দেননি।-অনুবাদক))

بَاب إِذَا أَتَى الرَّجُلُ امْرَأَتَهُ وَهِيَ حَائِضٌ

أَخْبَرَنَا عُثْمَانُ بْنُ مُحَمَّدٍ حَدَّثَنَا بِشْرُ بْنُ الْمُفَضَّلِ عَنْ مَالِكِ بْنِ الْخَطَّابِ الْعَنْبِرِيِّ عَنْ ابْنِ أَبِي مُلَيْكَةَ قَالَ سُئِلَ وَأَنَا أَسْمَعُ عَنْ الرَّجُلِ يَأْتِي امْرَأَتَهُ وَهِيَ حَائِضٌ قَالَ يَسْتَغْفِرُ اللَّهَ

أخبرنا عثمان بن محمد حدثنا بشر بن المفضل عن مالك بن الخطاب العنبري عن ابن أبي مليكة قال سئل وأنا أسمع عن الرجل يأتي امرأته وهي حائض قال يستغفر الله

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৩৬

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১১. যখন কোনো লোক তার হায়িযগ্রস্ত স্ত্রীর সাথে মিলিত হয়

১১৩৬. আবী কিলাবাহ হতে বর্ণিত, এক ব্যক্তি আবু বাকর রাদ্বিয়াল্লাহু আনহুর নিকট এসে বললো: আমি স্বপ্নে দেখছি, আমি যেন রক্ত পেশাব করছি। তুমি কি তোমার স্ত্রীর হায়িযগ্রস্ত অবস্থায় তার সাথে মিলিত হও? তখন সে বললো, হাঁ। তখন তিনি বললেন: আল্লাহকে ভয় কর। পূণরায় একাজ আর করো না।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ মুনকাতি’ বা বিচ্ছিন্ন। আবু কিলাবাহ উমার ইবনুল খাত্তাবের সাক্ষাত লাভ করেননি। ((ফলে আবু বকর রা: এর সাক্ষাতের প্রশ্নই উঠে না-অনুবাদক))।

তাখরীজ: আব্দুর রাযযাক নং ১২৭০; ইবনু আবী শাইবা ১/৪/৩১।

بَاب إِذَا أَتَى الرَّجُلُ امْرَأَتَهُ وَهِيَ حَائِضٌ

حَدَّثَنَا سُلَيْمَانُ بْنُ حَرْبٍ حَدَّثَنَا حَمَّادُ بْنُ زَيْدٍ عَنْ أَيُّوبَ عَنْ أَبِي قِلَابَةَ أَنَّ رَجُلًا أَتَى أَبَا بَكْرٍ فَقَالَ رَأَيْتُ فِي الْمَنَامِ كَأَنِّي أَبُولُ دَمًا قَالَ تَأْتِي امْرَأَتَكَ وَهِيَ حَائِضٌ قَالَ نَعَمْ قَالَ اتَّقِ اللَّهَ وَلَا تَعُدْ

حدثنا سليمان بن حرب حدثنا حماد بن زيد عن أيوب عن أبي قلابة أن رجلا أتى أبا بكر فقال رأيت في المنام كأني أبول دما قال تأتي امرأتك وهي حائض قال نعم قال اتق الله ولا تعد

 হাদিসের মানঃ যঈফ (Dai’f)  বর্ণনাকারীঃ আবূ কিলাবাহ্ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৩৭

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১১. যখন কোনো লোক তার হায়িযগ্রস্ত স্ত্রীর সাথে মিলিত হয়

১১৩৭. হিশাম হতে বর্ণিত, যে লোক তার হায়িযগ্রস্ত স্ত্রীর সাথে মিলিত হয়, তার সম্পর্কে মুহাম্মদ ইবনু সীরীন রাহি. বলেন, সে আল্লাহর নিকট ক্ষমা প্রার্থনা করবে।’[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: আব্দুর রাযযাক নং ১২৬৮।

بَاب إِذَا أَتَى الرَّجُلُ امْرَأَتَهُ وَهِيَ حَائِضٌ

أَخْبَرَنَا مُحَمَّدُ بْنُ يُوسُفَ حَدَّثَنَا سُفْيَانُ عَنْ هِشَامٍ عَنْ مُحَمَّدِ بْنِ سِيرِينَ فِي الَّذِي يَقَعُ عَلَى امْرَأَتِهِ وَهِيَ حَائِضٌ قَالَ يَسْتَغْفِرُ اللَّهَ

أخبرنا محمد بن يوسف حدثنا سفيان عن هشام عن محمد بن سيرين في الذي يقع على امرأته وهي حائض قال يستغفر الله

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ হিশাম ইবন হাসান (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৩৮

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১২. যিনি বলেন, তার উপর কাফফারাহ ওয়াজিব

১১৩৮. ইয়াযীদ ইবনু ইবরাহীম বলেন, আমি হাসান রাহি. কে বলতে শুনেছি, যে ব্যক্তি রমযান মাসে একদিন সিয়াম ভঙ্গ করবে, তার ব্যাপারে তিনি বলেন, (কাফফারা হিসেবে) একটি দাস মুক্ত করা কিংবা একটি হৃষ্টপুষ্ট পশু কুরবাণী করা কিংবা চল্লিশজন মিসকীনকে বিশ সা’আ খাদ্য দান করা তার উপর ওয়াজিব। আবার যে ব্যক্তি তার হায়িযগ্রস্ত স্ত্রীর সাথে মিলিত হবে, তার জন্যও এর অনুরূপ (কাফফারা ওয়াজিব হবে)।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: ইবনু আবী শাইবা ১/৪/৩২, দু’টি সনদে হাসান হতে বর্ণনা করেছেন, যার শব্দাবলী হলো: যিহারকারী পুরুষের উপর যা ওয়াজিব তারমতে এ ব্যক্তির উপরও তা ওয়াজিব।’

بَاب مَنْ قَالَ عَلَيْهِ الْكَفَّارَةُ

أَخْبَرَنَا مُسْلِمُ بْنُ إِبْرَاهِيمَ حَدَّثَنَا يَزِيدُ بْنُ إِبْرَاهِيمَ قَالَ سَمِعْتُ الْحَسَنَ يَقُولُ فِي الَّذِي يُفْطِرُ يَوْمًا مِنْ رَمَضَانَ قَالَ عَلَيْهِ عِتْقُ رَقَبَةٍ أَوْ بَدَنَةٌ أَوْ عِشْرِينَ صَاعًا لِأَرْبَعِينَ مِسْكِينًا وَفِي الَّذِي يَغْشَى امْرَأَتَهُ وَهِيَ حَائِضٌ مِثْلُ ذَلِكَ

أخبرنا مسلم بن إبراهيم حدثنا يزيد بن إبراهيم قال سمعت الحسن يقول في الذي يفطر يوما من رمضان قال عليه عتق رقبة أو بدنة أو عشرين صاعا لأربعين مسكينا وفي الذي يغشى امرأته وهي حائض مثل ذلك

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ ইয়াযীদ ইবনু ইবরাহীম (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৩৯

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১২. যিনি বলেন, তার উপর কাফফারাহ ওয়াজিব

১১৩৯. ইবনু আব্বাস রাদ্বিয়াল্লাহু আনহুমা থেকে, যে ব্যক্তি তার হায়িযগ্রস্ত স্ত্রীর সাথে মিলিত হয়, এমন ব্যক্তি সম্পর্কে নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম থেকে বর্ণিত হয়েছে: “সে অর্ধ দীনার সাদাকা করবে।”[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ হাসান।

তাখরীজ: আহমাদ ১/২৭২, ৩২৫; আবু দাউদ ২৬৬; তার সূত্রে বাইহাকী ১/৩১৬; তিরমিযী ১৩৬; ইবনু আবী শাইবা ১/৪/৩১; আব্দুর রাযযাক নং ১২৬১, ১২৬৩। পরবর্তী টীকাটি দেখুন।

بَاب مَنْ قَالَ عَلَيْهِ الْكَفَّارَةُ

أَخْبَرَنَا أَبُو الْوَلِيدِ حَدَّثَنَا شَرِيكٌ عَنْ خُصَيْفٍ عَنْ مِقْسَمٍ عَنْ ابْنِ عَبَّاسٍ عَنْ النَّبِيِّ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ فِي الَّذِي يَأْتِي امْرَأَتَهُ وَهِيَ حَائِضٌ قَالَ يَتَصَدَّقُ بِنِصْفِ دِينَارٍ

أخبرنا أبو الوليد حدثنا شريك عن خصيف عن مقسم عن ابن عباس عن النبي صلى الله عليه وسلم في الذي يأتي امرأته وهي حائض قال يتصدق بنصف دينار

 হাদিসের মানঃ হাসান (Hasan)  বর্ণনাকারীঃ আবদুল্লাহ ইবনু আব্বাস (রাঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৪০

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১২. যিনি বলেন, তার উপর কাফফারাহ ওয়াজিব

১১৪০. মিকসাম হতে, ’যে ব্যক্তি তার হায়িযগ্রস্ত স্ত্রীর সাথে মিলিত হয়, এমন ব্যক্তি সম্পর্কে ইবনু আব্বাস রাদ্বিয়াল্লাহু আনহুমা হতে বর্ণিত হয়েছে যে, সে এক দীনার সাদাকা করবে’- কিংবা (বর্ণনাকারী) হাকামের সন্দেহ- ’অর্ধ দীনার’ সাদাকা করবে।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: আহমাদ ১/২৩০, ২৮৬; আবু দাউদ ২৬৪, ২১৬৮; নাসাঈ ১/১৫৩; ইবনু মাজাহ ৬৪০; ইবনুল জারুদ, আল মুনতাকা নং ১০৮; ইবনু আবী শাইবা ১/৪/৩১; বাইহাকী ১/৩১৪।

হাকিম, আল মুসতাদরাক ১/১৭১-১৭২ এ একে সহীহ বলেছেন এবং যাহাবী তা সমর্থন করেছেন। আগের ও পরের হাদীস দেখুন।

بَاب مَنْ قَالَ عَلَيْهِ الْكَفَّارَةُ

حَدَّثَنَا أَبُو الْوَلِيدِ حَدَّثَنَا شُعْبَةُ عَنْ الْحَكَمِ عَنْ عَبْدِ الْحَمِيدِ عَنْ مِقْسَمٍ عَنْ ابْنِ عَبَّاسٍ فِي الَّذِي يَأْتِي امْرَأَتَهُ وَهِيَ حَائِضٌ قَالَ يَتَصَدَّقُ بِدِينَارٍ أَوْ نِصْفِ دِينَارٍ شَكَّ الْحَكَمُ

حدثنا أبو الوليد حدثنا شعبة عن الحكم عن عبد الحميد عن مقسم عن ابن عباس في الذي يأتي امرأته وهي حائض قال يتصدق بدينار أو نصف دينار شك الحكم

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ মিকসাম (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৪১

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১২. যিনি বলেন, তার উপর কাফফারাহ ওয়াজিব

১১৪১. (অপর সনদে) মিকসাম হতে, ’যে ব্যক্তি তার হায়িযগ্রস্ত স্ত্রীর সাথে মিলিত হয়, এমন ব্যক্তি সম্পর্কে ইবনু আব্বাস রাদ্বিয়াল্লাহু আনহুমা হতে বর্ণিত হয়েছে যে, সে এক দীনার কিংবা ’অর্ধ দীনার’ সাদাকা করবে।’[1]

শু’বাহ বলেন, আমার যতটা স্মরণ আছে, এটি মারফু’ হিসেবেই বর্ণিত। কিন্তু, অমুক ও অমুক ব্যক্তিদ্বয় একে ’গয়রে মারফু’ বলেছেন।

লোকদের কেউ বললো, অমুক অমুকের কথা বাদ দিন, আপনি আপনার স্মৃতি (বা মুখস্ত) থেকেই আমাদের নিকট হাদীস বর্ণনা করুন।

তখন তিনি বলেন, আল্লাহর কসম! আমার নিকট এটি পছন্দনীয় নয় যে, আমি নূহ আলাইহিস সালামের মত দীর্ঘজীবন লাভ করি এবং (আজীবন) এ হাদীস আমি বর্ণনা করে যাই। নতুবা (আমার নিকট পছন্দনীয় হলো) এ ব্যাপারে আমি চুপ করে থাকি।আবু মুহাম্মদ বলেন: আব্দুল হামীদ ইবনু যাইদ ইবনু আব্দুর রহমান ইবনু যাইদ ইবনু খাত্তাব, তিনি উমার ইবনু আব্দুল আযীয কর্তৃক নিযুক্ত কুফার গভর্ণর ছিলেন।

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: ইবনুল জারুদ, আল মুনতাকা নং ১০৯; পূর্ণ তাখরীজের জন্য আগের হাদীসটি দেখুন। এছাড়া দেখুন মুসনাদুল মাউসিলী নং ২৪৩২।

بَاب مَنْ قَالَ عَلَيْهِ الْكَفَّارَةُ

أَخْبَرَنَا سَعِيدُ بْنُ عَامِرٍ عَنْ شُعْبَةَ عَنْ الْحَكَمِ عَنْ عَبْدِ الْحَمِيدِ عَنْ مِقْسَمٍ عَنْ ابْنِ عَبَّاسٍ فِي الَّذِي يَغْشَى امْرَأَتَهُ وَهِيَ حَائِضٌ يَتَصَدَّقُ بِدِينَارٍ أَوْ نِصْفِ دِينَارٍ قَالَ شُعْبَةُ أَمَّا حِفْظِي فَهُوَ مَرْفُوعٌ وَأَمَّا فُلَانٌ وَفُلَانٌ فَقَالَا غَيْرُ مَرْفُوعٍ فَقَالَ بَعْضُ الْقَوْمِ حَدِّثْنَا بِحِفْظِكَ وَدَعْ مَا قَالَ فُلَانٌ وَفُلَانٌ فَقَالَ وَاللَّهِ مَا أُحِبُّ أَنِّي عُمِّرْتُ فِي الدُّنْيَا عُمُرَ نُوحٍ وَأَنِّي حَدَّثْتُ بِهَذَا أَوْ سَكَتُّ عَنْ هَذَا قَالَ أَبُو مُحَمَّد عَبْدُ الحَمِيدِ بْنُ زَيْدِ بْنِ عَبْدِ الرَّحمَنِ بْنِ زَيدِ بْنِ الخَطَّابِ وَكَانَ وَالِيَ عُمَرَ بْنِ عَبْدِ الْعَزِيزِ عَلَى الْكُوفَةِ

أخبرنا سعيد بن عامر عن شعبة عن الحكم عن عبد الحميد عن مقسم عن ابن عباس في الذي يغشى امرأته وهي حائض يتصدق بدينار أو نصف دينار قال شعبة أما حفظي فهو مرفوع وأما فلان وفلان فقالا غير مرفوع فقال بعض القوم حدثنا بحفظك ودع ما قال فلان وفلان فقال والله ما أحب أني عمرت في الدنيا عمر نوح وأني حدثت بهذا أو سكت عن هذا قال أبو محمد عبد الحميد بن زيد بن عبد الرحمن بن زيد بن الخطاب وكان والي عمر بن عبد العزيز على الكوفة

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ মিকসাম (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৪২

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১২. যিনি বলেন, তার উপর কাফফারাহ ওয়াজিব

১১৪২. এক ব্যক্তি হতে বর্ণিত, ইবনু আব্বাস রাদ্বিয়াল্লাহু আনহুমা বলেন, ’সে ব্যক্তি যদি তার (হায়িযগ্রস্ত) স্ত্রীর সাথে রক্ত নির্গত হওয়া অবস্থায় মিলিত হয়, তবে সে এক দীনার সাদাকা করবে। আর যদি তার স্ত্রীর রক্ত বন্ধ হয়ে যায়, এমতাবস্থায় (পবিত্রতা অর্জনের পূর্বে) সে তার সাথে মিলিত হলে ’অর্ধ দীনার’ সাদাকা করবে।[1]

[1] তাহক্বীক্ব : এর সনদে জাহালত (অজ্ঞাত পরিচয় রাবী) রয়েছে। (ফলে এর সনদ যয়ীফ)। এছাড়া এটি ইবনু আব্বাস পর্যন্ত মাওকুফ।

بَاب مَنْ قَالَ عَلَيْهِ الْكَفَّارَةُ

أَخْبَرَنَا مُحَمَّدُ بْنُ يُوسُفَ حَدَّثَنَا سُفْيَانُ عَنْ ابْنِ جُرَيْجٍ عَنْ عَبْدِ الْكَرِيمِ عَنْ رَجُلٍ عَنْ ابْنِ عَبَّاسٍ قَالَ إِذَا أَتَاهَا فِي دَمٍ فَدِينَارٌ وَإِذَا أَتَاهَا وَقَدْ انْقَطَعَ الدَّمُ فَنِصْفُ دِينَارٍ

أخبرنا محمد بن يوسف حدثنا سفيان عن ابن جريج عن عبد الكريم عن رجل عن ابن عباس قال إذا أتاها في دم فدينار وإذا أتاها وقد انقطع الدم فنصف دينار

 হাদিসের মানঃ যঈফ (Dai’f)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৪৩

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১২. যিনি বলেন, তার উপর কাফফারাহ ওয়াজিব

১১৪৩. ইবনু আব্বাস হতে বর্ণিত, তিনি বলেন, যে ব্যক্তি তার হায়িযগ্রস্ত স্ত্রীর সাথে মিলিত হয়, এমন ব্যক্তি সম্পর্কে নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বলেন: “সে অর্ধ দীনার সাদাকা করবে।”[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: এটি ১১৪৫ (অনুবাদে ১১৩৯) নং এ। আগের টীকাগুলিও দেখুন।

بَاب مَنْ قَالَ عَلَيْهِ الْكَفَّارَةُ

أَخْبَرَنَا مُحَمَّدُ بْنُ يُوسُفَ حَدَّثَنَا سُفْيَانُ عَنْ خُصَيْفٍ عَنْ مِقْسَمٍ عَنْ ابْنِ عَبَّاسٍ قَالَ قَالَ النَّبِيُّ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ فِي الَّذِي يَقَعُ عَلَى امْرَأَتِهِ وَهِيَ حَائِضٌ يَتَصَدَّقُ بِنِصْفِ دِينَارٍ

أخبرنا محمد بن يوسف حدثنا سفيان عن خصيف عن مقسم عن ابن عباس قال قال النبي صلى الله عليه وسلم في الذي يقع على امرأته وهي حائض يتصدق بنصف دينار

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ আবদুল্লাহ ইবনু আব্বাস (রাঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৪৪

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১২. যিনি বলেন, তার উপর কাফফারাহ ওয়াজিব

১১৪৪. আব্দুল হামীদ ইবনু যাইদ ইবনু খাত্তাব বলেন, উমার ইবনুল খাত্তাবের একজন স্ত্রী ছিলো যে সহবাস করতে অপছন্দ করতো। ফলে তিনি যেদিনই তার সাথে মিলিত হতে চাইতেন, সেদিনই সে তার নিকট হায়িযগ্রস্ত হওয়ার অজুহাত দিতেন। তারপর তিনি একদিন তার সাথে মিলিত হলেন, যেদিন সে সত্যই (হায়িযগ্রস্ত) ছিলো। তারপর তিনি নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের নিকট আসলেন (এবং বিষয়টি তাঁকে জানালেন।) তখন তিনি তাকে এক দীনারের দুই-পঞ্চমাংশ দান করতে আদেশ দিলেন।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ মু’দ্বাল (মাঝে একাধিক রাবী বাদ পড়েছে)।

তাখরীজ: আবু দাউদ ২৬৬। এ হাদীস বর্ণনার পর আবু দাউদ বলেছেন: ‘এটি ‍মু’দ্বাল’। সুনানে বাইহাকী ১/৩১৬।

بَاب مَنْ قَالَ عَلَيْهِ الْكَفَّارَةُ

أَخْبَرَنَا مُحَمَّدُ بْنُ يُوسُفَ حَدَّثَنَا الْأَوْزَاعِيُّ عَنْ يَزِيدَ بْنِ أَبِي مَالِكٍ عَنْ عَبْدِ الْحَمِيدِ بْنِ زَيْدِ بْنِ الْخَطَّابِ قَالَ كَانَ لِعُمَرَ بْنِ الْخَطَّابِ امْرَأَةٌ تَكْرَهُ الْجِمَاعَ فَكَانَ إِذَا أَرَادَ أَنْ يَأْتِيَهَا اعْتَلَّتْ عَلَيْهِ بِالْحَيْضِ فَوَقَعَ عَلَيْهَا فَإِذَا هِيَ صَادِقَةٌ فَأَتَى النَّبِيَّ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ فَأَمَرَهُ أَنْ يَتَصَدَّقَ بِخُمُسَيْ دِينَارٍ

أخبرنا محمد بن يوسف حدثنا الأوزاعي عن يزيد بن أبي مالك عن عبد الحميد بن زيد بن الخطاب قال كان لعمر بن الخطاب امرأة تكره الجماع فكان إذا أراد أن يأتيها اعتلت عليه بالحيض فوقع عليها فإذا هي صادقة فأتى النبي صلى الله عليه وسلم فأمره أن يتصدق بخمسي دينار

 হাদিসের মানঃ যঈফ (Dai’f)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৪৫

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১২. যিনি বলেন, তার উপর কাফফারাহ ওয়াজিব

১১৪৫. ইবনু আব্বাস রাদ্বিয়াল্লাহু আনহুমা থেকে বর্ণিত, নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বলেছেন: “যদি কোনো ব্যক্তি তার হায়িযগ্রস্ত স্ত্রীর সাথে মিলিত হয় আর তার রক্তস্রাব যদি তাজা (টকটকে লাল) হয়ে থাকে, তবে সে যেনো এক দীনার সাদাকা করে। আর যদি হলুদ বর্ণের স্রাব হতে থাকে, এমতাবস্থায় (মিলিত হলে) সে যেনো ’অর্ধ দীনার’ সাদাকা করে।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: আব্দুল কারীমের বংশ সম্পর্কে বিভিন্ন রকম বক্তব্য রয়েছে। কেউ কেউ বলেন: তিনি আব্দুল কারীম আবী উমাইয়া, আর তিনি যয়ীফ। আর কেউ বলেন: তিনি আব্দুল কারীম ইবনু মালিক আল জাজারী, আর তিনি নির্ভরযোগ্য রাবী। আমরা মুসনাদুল মাউসিলী নং ২৪৩২ নং হাদীসের তাখরীজে বিস্তারিতভাবে বিষয়টি আলোচনা করেছি।

তাখরীজ: দেখুন, তাবারাণী, মু’জামুল কাবীর নং ১২১৩৫।

بَاب مَنْ قَالَ عَلَيْهِ الْكَفَّارَةُ

أَخْبَرَنَا عُبَيْدُ اللَّهِ بْنُ مُوسَى عَنْ أَبِي جَعْفَرٍ الرَّازِيِّ عَنْ عَبْدِ الْكَرِيمِ عَنْ مِقْسَمٍ عَنْ ابْنِ عَبَّاسٍ عَنْ النَّبِيِّ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ قَالَ إِذَا أَتَى الرَّجُلُ امْرَأَتَهُ وَهِيَ حَائِضٌ فَإِنْ كَانَ الدَّمُ عَبِيطًا فَلْيَتَصَدَّقْ بِدِينَارٍ وَإِنْ كَانَتْ صُفْرَةً فَلْيَتَصَدَّقْ بِنِصْفِ دِينَارٍ

أخبرنا عبيد الله بن موسى عن أبي جعفر الرازي عن عبد الكريم عن مقسم عن ابن عباس عن النبي صلى الله عليه وسلم قال إذا أتى الرجل امرأته وهي حائض فإن كان الدم عبيطا فليتصدق بدينار وإن كانت صفرة فليتصدق بنصف دينار

 হাদিসের মানঃ তাহকীক অপেক্ষমাণ  বর্ণনাকারীঃ আবদুল্লাহ ইবনু আব্বাস (রাঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৪৬

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১২. যিনি বলেন, তার উপর কাফফারাহ ওয়াজিব

১১৪৬. (অপর সনদে) মিকসাম হতে বর্ণিত, ’যে ব্যক্তি তার হায়িযগ্রস্ত স্ত্রীর সাথে মিলিত হয়, এমন ব্যক্তি সম্পর্কে ইবনু আব্বাস রাদ্বিয়াল্লাহু আনহুমাকে জিজ্ঞাসা করা হলে তিনি বলেন, সে এক দীনার কিংবা ’অর্ধ দীনার’ সাদাকা করবে।’[1]এবং ইবরাহীম রাহি. বলেন, সে আল্লাহর নিকট ক্ষমা প্রার্থনা করবে।’[2]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ। এটি ইবনু আব্বাসের উপর মাওকুফ।

তাখরীজ: ((মুহাক্বিক্ব এর কোনো তাখরীজ দেননি। তবে এর তাখরীজের জন্য ১১৩৯-১১৪৩ ও ১১৪৫ নং হাদীসের তাখরীজ দেখা যেতে পারে। -অনুবাদক))

[2] তাহক্বীক্ব: এ হাদীসটির সনদ আগের হাদীসের সনদের সাথে সংশ্লিষ্ট । আব্দুর রাযযাক নং ১২৬৮ সহীহ সনদে।

بَاب مَنْ قَالَ عَلَيْهِ الْكَفَّارَةُ

أَخْبَرَنَا عَبْدُ اللَّهِ بْنُ مُحَمَّدٍ حَدَّثَنَا حَفْصٌ هُوَ ابْنُ غِيَاثٍ عَنْ الْأَعْمَشِ عَنْ الْحَكَمِ عَنْ مِقْسَمٍ عَنْ ابْنِ عَبَّاسٍ أَنَّهُ سُئِلَ عَنْ الَّذِي يَأْتِي امْرَأَتَهُ وَهِيَ حَائِضٌ قَالَ يَتَصَدَّقُ بِدِينَارٍ أَوْ بِنِصْفِ دِينَارٍ وَقَالَ إِبْرَاهِيمُ يَسْتَغْفِرُ اللَّهَ

أخبرنا عبد الله بن محمد حدثنا حفص هو ابن غياث عن الأعمش عن الحكم عن مقسم عن ابن عباس أنه سئل عن الذي يأتي امرأته وهي حائض قال يتصدق بدينار أو بنصف دينار وقال إبراهيم يستغفر الله

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ মিকসাম (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৪৭

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১২. যিনি বলেন, তার উপর কাফফারাহ ওয়াজিব

১১৪৭. আতা রাহি. হতে বর্ণিত, ইবনু আব্বাস রাদ্বিয়াল্লাহু আনহুমা বলেন, ’যখন কোনো ব্যক্তি তার হায়িযগ্রস্ত স্ত্রীর সাথে মিলিত হয়, তখন তার উপর এক দীনার সাদাকা করা ওয়াজিব।’[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ যয়ীফ, কেননা, মুহাম্মদ ইবনু আবী লাইলা যয়ীফ।

তাখরীজ: পূর্ণ তাখরীজের জন্য দেখুন বিগত ১১৫১ (অণুবাদে ১১৪৫) বরং ইবনু আব্বাস হতে বর্ণিত সকল হাদীসমূহ দেখুন।

بَاب مَنْ قَالَ عَلَيْهِ الْكَفَّارَةُ

أَخْبَرَنَا عَمْرُو بْنُ عَوْنٍ عَنْ خَالِدِ بْنِ عَبْدِ اللَّهِ عَنْ ابْنِ أَبِي لَيْلَى عَنْ عَطَاءٍ عَنْ ابْنِ عَبَّاسٍ قَالَ إِذَا وَقَعَ عَلَى امْرَأَتِهِ وَهِيَ حَائِضٌ فَعَلَيْهِ أَنْ يَتَصَدَّقَ بِدِينَارٍ

أخبرنا عمرو بن عون عن خالد بن عبد الله عن ابن أبي ليلى عن عطاء عن ابن عباس قال إذا وقع على امرأته وهي حائض فعليه أن يتصدق بدينار

 হাদিসের মানঃ যঈফ (Dai’f)  বর্ণনাকারীঃ আতা ইবনু আবী রাবাহ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৪৮

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১২. যিনি বলেন, তার উপর কাফফারাহ ওয়াজিব

১১৪৮. আব্দুল মালিক হতে বর্ণিত, ’যে ব্যক্তি তার হায়িযগ্রস্ত স্ত্রীর সাথে মিলিত হয়, এমন ব্যক্তি সম্পর্কে আতা রাহি. বলেন, সে এক দীনার সাদাকা করবে।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: ইবনু আবী শাইবা ১/৪/৩২।

بَاب مَنْ قَالَ عَلَيْهِ الْكَفَّارَةُ

أَخْبَرَنَا يَعْلَى بْنُ عُبَيْدٍ حَدَّثَنَا عَبْدُ الْمَلِكِ عَنْ عَطَاءٍ فِي رَجُلٍ جَامَعَ امْرَأَتَهُ وَهِيَ حَائِضٌ قَالَ يَتَصَدَّقُ بِدِينَارٍ

أخبرنا يعلى بن عبيد حدثنا عبد الملك عن عطاء في رجل جامع امرأته وهي حائض قال يتصدق بدينار

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ আব্দুল মালিক (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৪৯

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১২. যিনি বলেন, তার উপর কাফফারাহ ওয়াজিব

১১৪৯. (অপর সনদে) মিকসাম হতে, ইবনু আব্বাস রাদ্বিয়াল্লাহু আনহুমা বলেন, সে এক দীনার কিংবা ’অর্ধ দীনার’ সাদাকা করবে।’[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ যয়ীফ। এটি ইবনু আব্বাস হতে মাওকুফ হিসেবে বর্ণিত।

তাখরীজ: এটি ১১৫৩ (অনুবাদে ১১৪৬-৪৭) নং এ গত হয়েছে।

بَاب مَنْ قَالَ عَلَيْهِ الْكَفَّارَةُ

أَخْبَرَنَا عُبَيْدُ اللَّهِ بْنُ مُوسَى عَنْ ابْنِ أَبِي لَيْلَى عَنْ مِقْسَمٍ عَنْ ابْنِ عَبَّاسٍ قَالَ يَتَصَدَّقُ بِدِينَارٍ أَوْ نِصْفِ دِينَارٍ

أخبرنا عبيد الله بن موسى عن ابن أبي ليلى عن مقسم عن ابن عباس قال يتصدق بدينار أو نصف دينار

 হাদিসের মানঃ যঈফ (Dai’f)  বর্ণনাকারীঃ মিকসাম (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৫০

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১২. যিনি বলেন, তার উপর কাফফারাহ ওয়াজিব

১১৫০. শুয়াইব ইবনু ইসহাক হতে বর্ণিত, ’কোনো লোক তার স্ত্রীর সাথে মিলিত হয় অথচ তার স্ত্রী তখন হায়িযগ্রস্ত, কিংবা সে (হায়িয হতে) পবিত্রতাবস্থা দেখতে পেয়েছে, কিন্তু তখনও সে গোসল করেনি, -এমন ব্যক্তি সম্পর্কে আওযাঈ রাহি. বলেন, সে আল্লাহর নিকট ক্ষমা প্রার্থনা করবে এবং পাঁচ দীনার সাদাকা করবে।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: ((মুহাক্বিক্ব এটার কোনো তাখরীজ দেননি।-অনুবাদক))

بَاب مَنْ قَالَ عَلَيْهِ الْكَفَّارَةُ

أَخْبَرَنَا وَهْبُ بْنُ سَعِيدٍ عَنْ شُعَيْبِ بْنِ إِسْحَقَ عَنْ الْأَوْزَاعِيِّ فِي رَجُلٍ يَغْشَى امْرَأَتَهُ وَهِيَ حَائِضٌ أَوْ رَأَتْ الطُّهْرَ وَلَمْ تَغْتَسِلْ قَالَ يَسْتَغْفِرُ اللَّهَ وَيَتَصَدَّقُ بِخُمُسَيْ دِينَارٍ

أخبرنا وهب بن سعيد عن شعيب بن إسحق عن الأوزاعي في رجل يغشى امرأته وهي حائض أو رأت الطهر ولم تغتسل قال يستغفر الله ويتصدق بخمسي دينار

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ শু‘আয়ব (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৫১

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১২. যিনি বলেন, তার উপর কাফফারাহ ওয়াজিব

১১৫১. আব্দুল মালিক হতে বর্ণিত, আতা রাহি. বলেন, ’যখন কোনো ব্যক্তি তার হায়িযগ্রস্ত স্ত্রীর সাথে মিলিত হয়, তখন সে এক দীনার সাদাকা করবে।

তখন লোকদের মধ্যে থেকে একজন বলে উঠলো, হাসান বলে থাকেন, সে একটি দাস মুক্ত করবে। তিনি বললেন, তোমাদের সাধ্যমত আল্লাহর নৈকট্য অর্জন করতে আমি তোমাদেরকে বাধা দিবো না।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ জাইয়্যেদ (উত্তম)।

তাখরীজ: ((এর কোনো তাখরীজ দেননি; সম্ভবত: বিগত ১১৪৮ নং এ এর তাখরীজ গত হয়েছে।- অনুবাদক))

بَاب مَنْ قَالَ عَلَيْهِ الْكَفَّارَةُ

أَخْبَرَنَا مُحَمَّدُ بْنُ عُيَيْنَةَ عَنْ عَلِيِّ بْنِ مُسْهِرٍ عَنْ عَبْدِ الْمَلِكِ عَنْ عَطَاءٍ قَالَ إِذَا وَقَعَ الرَّجُلُ عَلَى امْرَأَتِهِ وَهِيَ حَائِضٌ يَتَصَدَّقُ بِنِصْفِ دِينَارٍ فَقَالَ لَهُ رَجُلٌ مِنْ الْقَوْمِ فَإِنَّ الْحَسَنَ يَقُولُ يُعْتِقُ رَقَبَةً فَقَالَ مَا أَنْهَاكُمْ أَنْ تَقَرَّبُوا إِلَى اللَّهِ مَا اسْتَطَعْتُمْ

أخبرنا محمد بن عيينة عن علي بن مسهر عن عبد الملك عن عطاء قال إذا وقع الرجل على امرأته وهي حائض يتصدق بنصف دينار فقال له رجل من القوم فإن الحسن يقول يعتق رقبة فقال ما أنهاكم أن تقربوا إلى الله ما استطعتم

 হাদিসের মানঃ হাসান (Hasan)  বর্ণনাকারীঃ আব্দুল মালিক (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৫২

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১২. যিনি বলেন, তার উপর কাফফারাহ ওয়াজিব

১১৫২. আতা রাহি. হতে বর্ণিত, ’যে ব্যক্তি তার হায়িযগ্রস্ত স্ত্রীর সাথে মিলিত হয়, এমন ব্যক্তি সম্পর্কে ইবনু আব্বাস রাদ্বিয়াল্লাহু আনহুমা বলেন, সে এক দীনার সাদাকা করবে।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ যয়ীফ। এটি মাওকুফ। এবং এটি ১১৫৫ (অনূবাদে ১১৪৯) নং এ গত হয়েছে।

بَاب مَنْ قَالَ عَلَيْهِ الْكَفَّارَةُ

أَخْبَرَنَا عُبَيْدُ اللَّهِ بْنُ مُوسَى عَنْ ابْنِ أَبِي لَيْلَى عَنْ عَطَاءٍ عَنْ ابْنِ عَبَّاسٍ فِي الَّذِي يَقَعُ عَلَى امْرَأَتِهِ وَهِيَ حَائِضٌ قَالَ يَتَصَدَّقُ بِدِينَارٍ

أخبرنا عبيد الله بن موسى عن ابن أبي ليلى عن عطاء عن ابن عباس في الذي يقع على امرأته وهي حائض قال يتصدق بدينار

 হাদিসের মানঃ যঈফ (Dai’f)  বর্ণনাকারীঃ আতা ইবনু আবী রাবাহ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৫৩

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১৩. পশ্চাদ্দার দিয়ে মহিলাদের নিকট গমণ করা

১১৫৩. ইবনু সাবিত হতে বর্ণিত, তিনি বলেন, আমি হাফসাহ বিনতে আব্দুর রহমান ইবনু আবী বাকরকে প্রশ্ন করলাম। তাকে বললাম, আমি আপনাকে একটি বিষয়ে জিজ্ঞেস করতে চাচ্ছি। কিন্তু জিজ্ঞেস করতে লজ্জা পাচ্ছি।

তিনি বললেন: হে ভাতিজা! তোমার যা মনে চায় জিজ্ঞেস করতে পারো।

তিনি (ইবনু সাবিত) বলেন, আমি আপনাকে পশ্চাদ্দার দিয়ে মহিলাদের নিকট গমণ করার বিষয়ে জিজ্ঞেস করতে চাচ্ছি?

তখন তিনি বলেন, উম্মু সালামাহ রাদ্বিয়াল্লাহু আনহা আমার নিকট হাদীস বর্ণনা করেছেন। তিনি বলেছেন, আনসারগণ (তাদের স্ত্রীদের নিকট গমণ করার সময় তাদেরকে) উপুড় করতেন না। কিন্তু মুহাজিরগণ উপুড় (করে গমণ) করতেন। একজন মুহাজির এক আনসার মহিলাকে বিবাহ করলেন। তখন তিনি (তার স্ত্রীকে) উপুড় করতে চাইলেন, কিন্তু তার স্ত্রী তা অস্বীকার করলো এবং সে বের হয়ে গেলো। তখন উম্মু সালামাহ এঘটনাটি নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের নিকট উল্লেখ করলে তিনি বললেন: “মহিলাকে আমার নিকট ডেকে নিয়ে এসো।” তাকে ডেকে আনা হলে তিনি তাকে বললেন: “তোমাদের স্ত্রীগণ তোমাদের জন্য ক্ষেতস্বরূপ; অতএব তোমরা যেভাবেই ইচ্ছা গমণ কর।” (সুরা বাকারা: ২২৩) (তবে গমণের জন্য) পথ একটিই।” আর ’الصمام ’হলো একটিই পথ।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: আহমাদ ৬/৩০৫, ৩১০, ৩১৮-৩১৯; তাবারী, আত তাফসীর ২/৯২, ৩৯৬; তিরমিযী ২৯৮৩, তিনি বলেন: হাদীসটি হাসান সহীহ; ইবনু আবী শাইবা ৪/২৩০-২৩১; বাইহাকী ৭/১৯৫; আব্দুর রাযযাক নং ২০৯৫৯।

بَاب إِتْيَانِ النِّسَاءِ فِي أَدْبَارِهِنَّ

أَخْبَرَنَا مُسْلِمُ بْنُ إِبْرَاهِيمَ حَدَّثَنَا وُهَيْبٌ حَدَّثَنَا عَبْدُ اللَّهِ بْنُ عُثْمَانَ بْنِ خُثَيْمٍ عَنْ ابْنِ سَابِطٍ قَالَ سَأَلْتُ حَفْصَةَ بِنْتَ عَبْدِ الرَّحْمَنِ هُوَ ابْنُ أَبِي بَكْرٍ قُلْتُ لَهَا إِنِّي أُرِيدُ أَنْ أَسْأَلَكِ عَنْ شَيْءٍ وَأَنَا أَسْتَحْيِي أَنْ أَسْأَلَكِ عَنْهُ قَالَتْ سَلْ يَا ابْنَ أَخِي عَمَّا بَدَا لَكَ قَالَ أَسْأَلُكِ عَنْ إِتْيَانِ النِّسَاءِ فِي أَدْبَارِهِنَّ فَقَالَتْ حَدَّثَتْنِي أُمُّ سَلَمَةَ قَالَتْ كَانَتْ الْأَنْصَارُ لَا تُجَبِّي وَكَانَتْ الْمُهَاجِرُونَ تُجَبِّي فَتَزَوَّجَ رَجُلٌ مِنْ الْمُهَاجِرِينَ امْرَأَةً مِنْ الْأَنْصَارِ فَجَبَّاهَا فَأَبَتْ الْأَنْصَارِيَّةُ فَأَتَتْ أُمَّ سَلَمَةَ فَذَكَرَتْ ذَلِكَ لَهَا فَلَمَّا أَنْ جَاءَ النَّبِيُّ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ اسْتَحْيَتْ الْأَنْصَارِيَّةُ وَخَرَجَتْ فَذَكَرَتْ ذَلِكَ أُمُّ سَلَمَةَ لِلنَّبِيِّ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ فَقَالَ ادْعُوهَا لِي فَدُعِيَتْ لَهُ فَقَالَ لَهَا نِسَاؤُكُمْ حَرْثٌ لَكَمْ فَأْتُوا حَرْثَكُمْ أَنَّى شِئْتُمْ سِمَامًا وَاحِدًا وَالسِّمَامُ السَّبِيلُ الْوَاحِدُ

أخبرنا مسلم بن إبراهيم حدثنا وهيب حدثنا عبد الله بن عثمان بن خثيم عن ابن سابط قال سألت حفصة بنت عبد الرحمن هو ابن أبي بكر قلت لها إني أريد أن أسألك عن شيء وأنا أستحيي أن أسألك عنه قالت سل يا ابن أخي عما بدا لك قال أسألك عن إتيان النساء في أدبارهن فقالت حدثتني أم سلمة قالت كانت الأنصار لا تجبي وكانت المهاجرون تجبي فتزوج رجل من المهاجرين امرأة من الأنصار فجباها فأبت الأنصارية فأتت أم سلمة فذكرت ذلك لها فلما أن جاء النبي صلى الله عليه وسلم استحيت الأنصارية وخرجت فذكرت ذلك أم سلمة للنبي صلى الله عليه وسلم فقال ادعوها لي فدعيت له فقال لها نساؤكم حرث لكم فأتوا حرثكم أنى شئتم سماما واحدا والسمام السبيل الواحد

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৫৪

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১৩. পশ্চাদ্দার দিয়ে মহিলাদের নিকট গমণ করা

১১৫৪. মুজাহিদ রাহি. বলেন, আমি ইবনু আব্বাস রাদ্বিয়াল্লাহু্ আনহুমা’র নিকট তিনবার কুরআন শুনিয়েছি, প্রত্যেক আয়াতে থেমে থেমে আমি তাকে জিজ্ঞেস করেছি, তা কোন্ বিষয়ে এবং কোথায় নাযিল হয়েছে। আমি তাঁকে বললাম, হে ইবনু আব্বাস! আপনি কি আল্লাহর তাআলার এ বাণী লক্ষ্য করেছেন? [“যখন তারা পবিত্র হবে, তখন তাদের নিকট গমণ করো, যেখান দিয়ে আল্লাহ তোমাদেরকে আদেশ করেছেন।” সুরা বাকারা: ২২২] তিনি বললেন, (এ আয়াতাংশে সেখান দিয়ে গমণ করতে নির্দেশ দিয়েছেন) যেখান থেকে আল্লাহ তোমাদেরকে বিরত থাকার আদেশ করেছেন।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ। মুসতাদরাক হাকিমে ইবনু ইসহাক ‘হাদ্দাসানা’ বলে বর্ণনা করেছেন।

তাখরীজ: আবু দাউদ ২১৬৪; তাবারাণী, আল কাবীর নং ১১০৯৭; হাকিম ২/১৫৯, ১৭৯; তাবারী, আত তাফসীর ৩৯৫-৩৯৬; ওয়াহিদী, আসবাবুন নুযুল পৃ: ৫২; হাকিম ও যাহাবী একে মুসলিমের শর্তানুযায়ী সহীহ বলেছেন। …ইবনু কাছীর তার তাফসীর ১/৩৮২ এ বলেছেন: ‘আবু দাউদ এক্ষেত্রে একাকী হয়ে গেছেন। তবে এর সহীহ হওয়ার সাক্ষ্য দেয় পূর্বে বর্ণিত হাদীসসমূহ…’।

بَاب إِتْيَانِ النِّسَاءِ فِي أَدْبَارِهِنَّ

أَخْبَرَنَا الْحَكَمُ بْنُ الْمُبَارَكِ أَخْبَرَنَا مُحَمَّدُ بْنُ سَلَمَةَ عَنْ مُحَمَّدِ بْنِ إِسْحَقَ عَنْ أَبَانَ بْنِ صَالِحٍ عَنْ مُجَاهِدٍ قَالَ لَقَدْ عَرَضْتُ الْقُرْآنَ عَلَى ابْنِ عَبَّاسٍ ثَلَاثَ عَرَضَاتٍ أَقِفُ عِنْدَ كُلِّ آيَةٍ أَسْأَلُهُ فِيمَ أُنْزِلَتْ وَفِيمَ كَانَتْ فَقُلْتُ يَا ابْنَ عَبَّاسٍ أَرَأَيْتَ قَوْلَ اللَّهِ تَعَالَى فَإِذَا تَطَهَّرْنَ فَأْتُوهُنَّ مِنْ حَيْثُ أَمَرَكُمْ اللَّهُ قَالَ مِنْ حَيْثُ أَمَرَكُمْ أَنْ تَعْتَزِلُوهُنَّ

أخبرنا الحكم بن المبارك أخبرنا محمد بن سلمة عن محمد بن إسحق عن أبان بن صالح عن مجاهد قال لقد عرضت القرآن على ابن عباس ثلاث عرضات أقف عند كل آية أسأله فيم أنزلت وفيم كانت فقلت يا ابن عباس أرأيت قول الله تعالى فإذا تطهرن فأتوهن من حيث أمركم الله قال من حيث أمركم أن تعتزلوهن

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ মুজাহিদ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৫৫

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১৩. পশ্চাদ্দার দিয়ে মহিলাদের নিকট গমণ করা

১১৫৫. উছমান ইবনুল আসওয়াদ হতে বর্ণিত, [“তখন তাদের নিকট গমণ করো, যেখান দিয়ে আল্লাহ তোমাদেরকে আদেশ করেছেন।” সুরা বাকারা: ২২২] (এ আয়াতের ব্যাখ্যায়) মুজাহিদ রাহি. বলেন, তোমাদেরকে নির্দেশ দেয়া হয়েছে যে, তারা সেই স্থান দিয়ে গমণ করবে, (হায়িযের সময়) যে স্থান থেকে তাদেরকে বিরত থাকার আদেশ করা হয়েছিল।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: ইবনু আবী শাইবা ৪/২৩২-২৩৩ সহীহ সনদে; তাবারী, আত তাফসীর ২/৩৮৮, ১৯/১০৫; আরও দেখুন সামনে ১১৬৩ (অনূবাদে ১১৫৭) নং হাদীসটি।

بَاب إِتْيَانِ النِّسَاءِ فِي أَدْبَارِهِنَّ

أَخْبَرَنَا مُحَمَّدُ بْنُ يُوسُفَ حَدَّثَنَا سُفْيَانُ عَنْ عُثْمَانَ بْنِ الْأَسْوَدِ عَنْ مُجَاهِدٍ فَأْتُوهُنَّ مِنْ حَيْثُ أَمَرَكُمْ اللَّهُ قَالَ أُمِرُوا أَنْ يَأْتُوا مِنْ حَيْثُ نُهُوا

أخبرنا محمد بن يوسف حدثنا سفيان عن عثمان بن الأسود عن مجاهد فأتوهن من حيث أمركم الله قال أمروا أن يأتوا من حيث نهوا

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ উসমান ইবনুল আসওয়াদ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৫৬

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১৩. পশ্চাদ্দার দিয়ে মহিলাদের নিকট গমণ করা

১১৫৬. আ’মাশ হতে বর্ণিত, [“তখন তাদের নিকট গমণ করো, যেখান দিয়ে আল্লাহ তোমাদেরকে আদেশ করেছেন।” সুরা বাকারা: ২২২] (এ আয়াতের ব্যাখ্যায়) আবী রযীন বলেন, যখন তারা পবিত্রতার সময় (তাদের নিকট গমণ করবে)।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ। আবী রযীন হলেন: মাসউদ ইবনু মালিক।

তাখরীজ: তাবারী, আত তাফসীর ২/৩৮৮-৩৮৯ সহীহ সনদে; ইবনু আবী শাইবা ৪/২৩৩ সহীহ সনদে; এবং ৪/২৩০;

بَاب إِتْيَانِ النِّسَاءِ فِي أَدْبَارِهِنَّ

أَخْبَرَنَا مُحَمَّدُ بْنُ يُوسُفَ حَدَّثَنَا سُفْيَانُ عَنْ الْأَعْمَشِ عَنْ أَبِي رَزِينٍ فَأْتُوهُنَّ مِنْ حَيْثُ أَمَرَكُمْ اللَّهُ قَالَ مِنْ قِبَلِ الطُّهْرِ

أخبرنا محمد بن يوسف حدثنا سفيان عن الأعمش عن أبي رزين فأتوهن من حيث أمركم الله قال من قبل الطهر

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ আ‘মাশ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৫৭

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১৩. পশ্চাদ্দার দিয়ে মহিলাদের নিকট গমণ করা

১১৫৭. ইবরাহীম ইবনু মুহাজির থেকে বর্ণিত, (আল্লাহর বাণী:) [“তোমাদের প্রতিপালক তোমাদের জন্য যে স্ত্রীলোক সৃষ্টি করেছেন, তাদেরকে তোমরা বর্জন করছো?” সুরা শু’আরা: ১৬৬] (এ আয়াতের ব্যাখ্যায়) মুজাহিদ রাহি. বলেন: আল্লাহর কসম, সেটি (স্ত্রীলোকের) সম্মুখ রাস্তা (তথা যৌনাঙ্গ)।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ হাসান।

তাখরীজ: ইবনু আবী শাইবা ৪/২৩২; এটি ১১৬১ (অনূবাদে ১১৫৫) নং এ গত হয়েছে।

بَاب إِتْيَانِ النِّسَاءِ فِي أَدْبَارِهِنَّ

أَخْبَرَنَا مُحَمَّدُ بْنُ يَزِيدَ الْبَزَّازُ حَدَّثَنَا شَرِيكٌ عَنْ إِبْرَاهِيمَ بْنِ مُهَاجِرٍ عَنْ مُجَاهِدٍ وَتَذَرُونَ مَا خَلَقَ لَكُمْ رَبُّكُمْ مِنْ أَزْوَاجِكُمْ قَالَ هُوَ وَاللَّهِ الْقُبُلُ

أخبرنا محمد بن يزيد البزاز حدثنا شريك عن إبراهيم بن مهاجر عن مجاهد وتذرون ما خلق لكم ربكم من أزواجكم قال هو والله القبل

 হাদিসের মানঃ হাসান (Hasan)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৫৮

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১৩. পশ্চাদ্দার দিয়ে মহিলাদের নিকট গমণ করা

১১৫৮. খালিদ ইবনু রাবাহ থেকে বর্ণিত, (আল্লাহর বাণী:) [“তোমাদের স্ত্রীগণ তোমাদের জন্য ক্ষেতস্বরূপ; অতএব তোমরা যেভাবেই ইচ্ছা গমণ কর।” (সুরা বাকারা: ২২৩)] (এ আয়াতের ব্যাখ্যায়) ইকরিমাহ রাহি. বলেন, নিশ্চয়ই সে স্থানটি হলো যৌনাঙ্গ।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: ইবনু আবী শাইবা ৪/২২৯, ২৩২।

بَاب إِتْيَانِ النِّسَاءِ فِي أَدْبَارِهِنَّ

أَخْبَرَنَا عُثْمَانُ بْنُ عُمَرَ حَدَّثَنَا خَالِدُ بْنُ رَبَاحٍ عَنْ عِكْرِمَةَ نِسَاؤُكُمْ حَرْثٌ لَكُمْ فَأْتُوا حَرْثَكُمْ أَنَّى شِئْتُمْ قَالَ إِنَّمَا هُوَ الْفَرْجُ

أخبرنا عثمان بن عمر حدثنا خالد بن رباح عن عكرمة نساؤكم حرث لكم فأتوا حرثكم أنى شئتم قال إنما هو الفرج

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৫৯

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১৩. পশ্চাদ্দার দিয়ে মহিলাদের নিকট গমণ করা

১১৫৯. আলী ইবনু আলী আর রিফাঈ বর্ণনা করেন, তিনি বলেন, আমি হাসান রাহি. কে বলতে শুনেছি, ইয়াহুদীরা (মুসলিমদের বিভিন্নভাবে স্ত্রী-গমণের বিষয়টিকে বিদ্রূপ করতে) কোনো রকম কসূর করতো না, যা মুসলিমদের উপর খুব কঠিন মনে হলো। তারা (ইয়াহুদীরা) বলতো, হে মুহাম্মদের সাথীগণ! আল্লাহর কসম! একটি মাত্র দিক (সামনের থেকে) ব্যতীত আর কোনো দিক থেকেই তোমাদের স্ত্রীগণের নিকট গমণ করা তোমাদের জন্য হালাল নয়।তিনি বলেন, তখন আল্লাহ তা’আলা নাযিল করলেন: [“তোমাদের স্ত্রীগণ তোমাদের জন্য ক্ষেতস্বরূপ; অতএব তোমরা যেভাবেই ইচ্ছা গমণ কর।” (সুরা বাকারা: ২২৩)] ফলে আল্লাহ (এভাবে) মু’মিনদের প্রয়োজনকে অবমুক্ত করে দিলেন।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: ইবনু আবী শাইবা ৪/২৩২।

بَاب إِتْيَانِ النِّسَاءِ فِي أَدْبَارِهِنَّ

أَخْبَرَنَا أَبُو نُعَيْمٍ حَدَّثَنَا عَلِيُّ بْنُ عَلِيٍّ الرِّفَاعِيُّ قَالَ سَمِعْتُ الْحَسَنَ يَقُولُ كَانَتْ الْيَهُودُ لَا تَأْلُو مَا شَدَّدَتْ عَلَى الْمُسْلِمِينَ كَانُوا يَقُولُونَ يَا أَصْحَابَ مُحَمَّدٍ إِنَّهُ وَاللَّهِ مَا يَحِلُّ لَكُمْ أَنْ تَأْتُوا نِسَاءَكُمْ إِلَّا مِنْ وَجْهٍ وَاحِدٍ قَالَ فَأَنْزَلَ اللَّهُ نِسَاؤُكُمْ حَرْثٌ لَكُمْ فَأْتُوا حَرْثَكُمْ أَنَّى شِئْتُمْ فَخَلَّى اللَّهُ بَيْنَ الْمُؤْمِنِينَ وَبَيْنَ حَاجَتِهِمْ

أخبرنا أبو نعيم حدثنا علي بن علي الرفاعي قال سمعت الحسن يقول كانت اليهود لا تألو ما شددت على المسلمين كانوا يقولون يا أصحاب محمد إنه والله ما يحل لكم أن تأتوا نساءكم إلا من وجه واحد قال فأنزل الله نساؤكم حرث لكم فأتوا حرثكم أنى شئتم فخلى الله بين المؤمنين وبين حاجتهم

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৬০

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১৩. পশ্চাদ্দার দিয়ে মহিলাদের নিকট গমণ করা

১১৬০. সাঈদ ইবনু জুবাইর হতে বর্ণিত, [“অতএব তোমরা যেভাবেই ইচ্ছা গমণ কর।” (সুরা বাকারা: ২২৩)] (এ আয়াতের ব্যাখ্যায়) ইবনু আব্বাস রাদ্বিয়াল্লাহু আনহুমা বলেন, তোমরা স্ত্রীদের নিকট সামনের থেকে ও পেছনের দিক থেকে গমণ কর, তবে তা যেন গমণস্থলে (যৌনাঙ্গে) হয়।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ যয়ীফ। খালিদ ইবনু আব্দুল্লাহ আতা হতে শ্রবণ করা হতে পিছিয়ে।

তাখরীজ: তাবারী, আত তাফসীর ২/৩৯২ যয়ীফ সনদে; দেখুন বাইহাকী, সুনান ৭/১৯৬।

بَاب إِتْيَانِ النِّسَاءِ فِي أَدْبَارِهِنَّ

أَخْبَرَنَا عَمْرُو بْنُ عَوْنٍ عَنْ خَالِدِ بْنِ عَبْدِ اللَّهِ عَنْ عَطَاءِ بْنِ السَّائِبِ عَنْ سَعِيدِ بْنِ جُبَيْرٍ عَنْ ابْنِ عَبَّاسٍ فَأْتُوا حَرْثَكُمْ أَنَّى شِئْتُمْ قَالَ ائْتِهَا مِنْ بَيْنِ يَدَيْهَا وَمِنْ خَلْفِهَا بَعْدَ أَنْ يَكُونَ فِي الْمَأْتَى

أخبرنا عمرو بن عون عن خالد بن عبد الله عن عطاء بن السائب عن سعيد بن جبير عن ابن عباس فأتوا حرثكم أنى شئتم قال ائتها من بين يديها ومن خلفها بعد أن يكون في المأتى

 হাদিসের মানঃ যঈফ (Dai’f)  বর্ণনাকারীঃ সা‘ঈদ ইবনু যুবায়র (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৬১

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১৩. পশ্চাদ্দার দিয়ে মহিলাদের নিকট গমণ করা

১১৬১. ইকরিমাহ রাহি. বলেন, জাহিলী যুগের লোকেরা স্ত্রীলোকের হায়িয অবস্থায় মাজুসী (অগ্নিপুজারী) সম্প্রদায়ের লোকদের মতো (তাদের সাথে সহবাস) করতো। তখন নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের নিকট বিষয়টি উত্থাপিত হলো, তখন এ আয়াত নাযিল হলো: [“তারা তোমাকে (স্ত্রী লোকদের) হায়িয সম্পর্কে জিজ্ঞেস করছে; তুমি বলো, ওটা হচ্ছে কষ্টদায়ক অবস্থা। অতএব, হায়িয অবস্থায় স্ত্রীলোকদের থেকে (সঙ্গম না করে) বিরত থাক এবং উত্তমরূপে পবিত্র না হওয়া পর্যন্ত তোমরা তাদের নিকট যেওনা।” (সুরা বাকারা: ২২২)] ফলে এ আদেশটি (হায়িয অবস্থায় উভয় রাস্তায় সংগম হারাম করার মাধ্যমে[1]) স্ত্রীলোকদের ব্যাপারে কঠোরতাই বৃদ্ধি করেছে।[2]

[1] ((ফাতহুল মান্নান অত্র (১২৩০ নং) হাদীসের ব্যাখ্যা দ্র:-অনুবাদক))

[2] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: এটি এখানে ব্যতীত অন্য কোথাও সনদ সহ পাইনি। ইবনু আবী শাইবা ৪/২২৯ সাকাফীর সুত্রে সংক্ষেপে।

بَاب إِتْيَانِ النِّسَاءِ فِي أَدْبَارِهِنَّ

أَخْبَرَنَا خَلِيفَةُ بْنُ خَيَّاطٍ حَدَّثَنَا عَبْدُ الْوَهَّابِ حَدَّثَنَا خَالِدٌ عَنْ عِكْرِمَةَ قَالَ كَانَ أَهْلُ الْجَاهِلِيَّةِ يَصْنَعُونَ فِي الْحَائِضِ نَحْوًا مِنْ صَنِيعِ الْمَجُوسِ فَذُكِرَ ذَلِكَ لِلنَّبِيِّ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ فَنَزَلَتْ وَيَسْأَلُونَكَ عَنْ الْمَحِيضِ قُلْ هُوَ أَذًى فَاعْتَزِلُوا النِّسَاءَ فِي الْمَحِيضِ وَلَا تَقْرَبُوهُنَّ حَتَّى يَطْهُرْنَ فَلَمْ يَزْدَدْ الْأَمْرُ فِيهِنَّ إِلَّا شِدَّةً

أخبرنا خليفة بن خياط حدثنا عبد الوهاب حدثنا خالد عن عكرمة قال كان أهل الجاهلية يصنعون في الحائض نحوا من صنيع المجوس فذكر ذلك للنبي صلى الله عليه وسلم فنزلت ويسألونك عن المحيض قل هو أذى فاعتزلوا النساء في المحيض ولا تقربوهن حتى يطهرن فلم يزدد الأمر فيهن إلا شدة

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ ইকরিমা (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৬২

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১৩. পশ্চাদ্দার দিয়ে মহিলাদের নিকট গমণ করা

১১৬২. আবী নাজীহ হতে বর্ণিত, [“তুমি বলো, ওটা হচ্ছে কষ্টদায়ক অবস্থা।” (সুরা বাকারা : ২২২)] এ আয়াত সম্পর্কে মুজাহিদ রাহি. বলেন, ওটা (কষ্টদায়ক অবস্থা অর্থ) হচ্ছে রক্ত।’[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ যয়ীফ। মুয়াম্মিল হচ্ছে ইবনু ইসমাঈল। তিনি যয়ীফ।

তাখরীজ: তাবারী, তাফসীর ২/৩৮১ যয়ীফ সনদে।

بَاب إِتْيَانِ النِّسَاءِ فِي أَدْبَارِهِنَّ

أَخْبَرَنَا خَلِيفَةُ حَدَّثَنَا مُؤَمَّلٌ عَنْ سُفْيَانَ عَنْ ابْنِ أَبِي نَجِيحٍ عَنْ مُجَاهِدٍ قُلْ هُوَ أَذًى قَالَ هُوَ الدَّمُ

أخبرنا خليفة حدثنا مؤمل عن سفيان عن ابن أبي نجيح عن مجاهد قل هو أذى قال هو الدم

 হাদিসের মানঃ যঈফ (Dai’f)  বর্ণনাকারীঃ ইবনু আবী নাজীহ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৬৩

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১৩. পশ্চাদ্দার দিয়ে মহিলাদের নিকট গমণ করা

১১৬৩. মু’তামির হতে বর্ণিত, [“তুমি বলো, ওটা হচ্ছে কষ্টদায়ক অবস্থা।” (সুরা বাকারা : ২২২)] এ আয়াত সম্পর্কে কাতাদা রাহি. বলেন, ওটা (’কষ্টদায়ক অবস্থা’ অর্থ) হচ্ছে অপরিচ্ছন্নতা বা পঙ্কিলতা।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: তাবারী, তাফসীর ২/৩৮১ সহীহ সনদে।

بَاب إِتْيَانِ النِّسَاءِ فِي أَدْبَارِهِنَّ

أَخْبَرَنَا مُحَمَّدُ بْنُ الصَّلْتِ حَدَّثَنَا ابْنُ الْمُبَارَكِ عَنْ مَعْمَرٍ عَنْ قَتَادَةَ قُلْ هُوَ أَذًى قَالَ قَذَرٌ

أخبرنا محمد بن الصلت حدثنا ابن المبارك عن معمر عن قتادة قل هو أذى قال قذر

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ মু’তামির (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৬৪

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১৩. পশ্চাদ্দার দিয়ে মহিলাদের নিকট গমণ করা

১১৬৪. ঈসা ইবনু কায়িস হতে বর্ণিত, (আল্লাহর বাণী:) [“তোমাদের স্ত্রীগণ তোমাদের জন্য ক্ষেতস্বরূপ; অতএব তোমরা যেভাবেই ইচ্ছা তোমাদের ক্ষেতে গমণ কর।” (সুরা বাকারা: ২২৩)] (এ আয়াতের ব্যাখ্যায়) সাঈদ ইবনুল মুসাইয়্যিব রাহি. বলেন, তোমরা ইচ্ছা করলে ’আযল’ করো, আবার ইচ্ছা করলে ’আযল’ নাও করতে পারো।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ যয়ীফ। লাইছ হচ্ছে আবী সালিম, তিনি যয়ীফ।

তাখরীজ: তাবারী, তাফসীর ২/৩৯৫ যয়ীফ সনদে। নতুবা, এমন বর্ণনাকারীর সূ্ত্রে যাকে আমি চিনি না।

ওয়াহিদী, আসবাবুন নুযূল পৃ: ৫৪ যয়ীফ সনদে: ইবনু আবী শাইবা ৪/২৩২।

بَاب إِتْيَانِ النِّسَاءِ فِي أَدْبَارِهِنَّ

أَخْبَرَنَا خَلِيفَةُ بْنُ خَيَّاطٍ حَدَّثَنَا الْمُعْتَمِرُ قَالَ سَمِعْتُ لَيْثًا حَدَّثَ عَنْ عِيسَى بْنِ قَيْسٍ عَنْ سَعِيدِ بْنِ الْمُسَيَّبِ نِسَاؤُكُمْ حَرْثٌ لَكُمْ فَأْتُوا حَرْثَكُمْ أَنَّى شِئْتُمْ قَالَ إِنْ شِئْتَ فَاعْزِلْ وَإِنْ شِئْتَ فَلَا تَعْزِلْ

أخبرنا خليفة بن خياط حدثنا المعتمر قال سمعت ليثا حدث عن عيسى بن قيس عن سعيد بن المسيب نساؤكم حرث لكم فأتوا حرثكم أنى شئتم قال إن شئت فاعزل وإن شئت فلا تعزل

 হাদিসের মানঃ যঈফ (Dai’f)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৬৫

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১৩. পশ্চাদ্দার দিয়ে মহিলাদের নিকট গমণ করা

১১৬৫. আউফ হতে বর্ণিত, হাসান রাহি. বলেন, তুমি যে অবস্থায় ইচ্ছা কর, (স্ত্রী-সহবাস করতে পারো)? অর্থা সহবাস করবে স্ত্রীলোকদের যৌনাঙ্গে।’ [1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: দেখুন, সয়ূতী, দুররে মানছুর ১/২৬২।

بَاب إِتْيَانِ النِّسَاءِ فِي أَدْبَارِهِنَّ

أَخْبَرَنَا خَلِيفَةُ حَدَّثَنَا عَبْدُ الْوَهَّابِ عَنْ عَوْفٍ عَنْ الْحَسَنِ قَالَ كَيْفَ شِئْتَ يَعْنِي إِتْيَانَهَا فِي الْفَرْجِ

أخبرنا خليفة حدثنا عبد الوهاب عن عوف عن الحسن قال كيف شئت يعني إتيانها في الفرج

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ আওফ (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৬৬

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১৩. পশ্চাদ্দার দিয়ে মহিলাদের নিকট গমণ করা

১১৬৬. মুহাম্মদ ইবনুল মুনকাদির রাহি. হতে বর্ণিত, জাবির ইবনু আব্দুল্লাহ রাদ্বিয়াল্লাহু আনহু ইয়াহুদীগণ মুসলিমদেরকে বলতো, যে লোক পিছনের দিক থেকে স্ত্রী সহবাস করবে, তার সন্তান টেরা চোখবিশিষ্ট হবে। তখন আল্লাহ তা’আলা নাযিল করলেন: [“তোমাদের স্ত্রীগণ তোমাদের জন্য ক্ষেতস্বরূপ; অতএব তোমরা যেভাবেই ইচ্ছা তোমাদের ক্ষেতে গমণ কর।”[1] (সুরা বাকারা: ২২৩)]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ। হাদীসটি বুখারী মুসলিমের হাদীস।

তাখরীজ: আমরা এর পূর্ণাঙ্গ তাখরীজ দিয়েছি মুসনাদুল মাওসিলী নং ২০২৪ এ ((“বুখারী, আস সহীহ ৪৫২৮; মুসলিম, আস সহীহ ১৪৩৫; আবু দাউদ ২১৬৩; তিরমিযী ২৯৮২; ইবনু মাজাহ ১৯২৫; তাহাবী, শারহু মা’আনিল আছার ৩/৪০; তাবারী, আত তাফসীর ২/৩৯৬; বাইহাকী, আস সুনান ৭/১৯৪-১৯৫; ইবনু হিব্বান ৪১৭৪, ৪২০৫”- মুসনাদুল মাওসিলী নং ২০২৪ এর মুহাক্বিক্বের টীকা হতে-অনুবাদক। )) ও সহীহ ইবনু হিব্বান নং ৪১৭৪, ৪২০৫ ও মুসনাদুল হুমাইদী নং ১৩০০ এ।

এছাড়াও : ইবনু আবী শাইবা ৪/২৩০; বাইহাকী, মা’রিফাতুস সুনান ১০/১৬০ নং ১৪৫২; আরও দেখুন, দুররে মানছুর ১/২৬১।

بَاب إِتْيَانِ النِّسَاءِ فِي أَدْبَارِهِنَّ

أَخْبَرَنَا أَحْمَدُ بْنُ عَبْدِ اللَّهِ بْنِ يُونُسَ حَدَّثَنَا مَالِكٌ عَنْ مُحَمَّدِ بْنِ الْمُنْكَدِرِ عَنْ جَابِرِ بْنِ عَبْدِ اللَّهِ الْأَنْصَارِيِّ أَنَّ الْيَهُودَ قَالُوا لِلْمُسْلِمِينَ مَنْ أَتَى امْرَأَتَهُ وَهِيَ مُدْبِرَةٌ جَاءَ وَلَدُهُ أَحْوَلَ فَأَنْزَلَ اللَّهُ تَعَالَى نِسَاؤُكُمْ حَرْثٌ لَكُمْ فَأْتُوا حَرْثَكُمْ أَنَّى شِئْتُمْ

أخبرنا أحمد بن عبد الله بن يونس حدثنا مالك عن محمد بن المنكدر عن جابر بن عبد الله الأنصاري أن اليهود قالوا للمسلمين من أتى امرأته وهي مدبرة جاء ولده أحول فأنزل الله تعالى نساؤكم حرث لكم فأتوا حرثكم أنى شئتم

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ মুহাম্মাদ ইবনুল মুনকাদির (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৬৭

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১৩. পশ্চাদ্দার দিয়ে মহিলাদের নিকট গমণ করা

১১৬৭. খালিদ আল হাজ্জা হতে বর্ণিত, [“অতএব তোমরা যেভাবেই ইচ্ছা তোমাদের ক্ষেতে গমণ কর।” (সুরা বাকারা: ২২৩)] (এ আয়াতের ব্যাখ্যায়) ’ইকরিমাহ রাহি. বলেন, ’স্ত্রীলোকের দাঁড়ানো কিংবা বসা অবস্থায়, সামনে থেকে কিংবা পিছন থেকে, যে অবস্থায়ই চায়, সেভাবেই সে তার স্ত্রীর সাথে সহবাস করতে পারে।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: ইবনু আবী শাইবা ৪/২২৯ সহীহ সনদে।

بَاب إِتْيَانِ النِّسَاءِ فِي أَدْبَارِهِنَّ

حَدَّثَنَا عَمْرُو بْنُ عَوْنٍ عَنْ خَالِدِ بْنِ عَبْدِ اللَّهِ عَنْ خَالِدٍ الْحَذَّاءِ عَنْ عِكْرِمَةَ فَأْتُوا حَرْثَكُمْ أَنَّى شِئْتُمْ قَالَ يَأْتِي أَهْلَهُ كَيْفَ شَاءَ قَائِمًا وَقَاعِدًا وَبَيْنَ يَدَيْهَا وَمِنْ خَلْفِهَا

حدثنا عمرو بن عون عن خالد بن عبد الله عن خالد الحذاء عن عكرمة فأتوا حرثكم أنى شئتم قال يأتي أهله كيف شاء قائما وقاعدا وبين يديها ومن خلفها

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  বর্ণনাকারীঃ খালিদ আল-হাজ্জা (রহঃ)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

 ১১৬৮

 শেয়ার ও অন্যান্য 

  • বাংলা/ العربية

পরিচ্ছেদঃ ১১৩. পশ্চাদ্দার দিয়ে মহিলাদের নিকট গমণ করা

১১৬৮. ইয়াযীদ ইবনুল ওয়ালীদ থেকে বর্ণিত, [“তখন তাদের নিকট গমণ করো, যেখান দিয়ে আল্লাহ তোমাদেরকে আদেশ করেছেন।” সুরা বাকারা: ২২২] (এ আয়াতের ব্যাখ্যায়) ইবরাহীম রাহি. বলেন, (সহবাস হতে হবে) যৌনাঙ্গে।[1]

[1] তাহক্বীক্ব: এর সনদ সহীহ।

তাখরীজ: ইবনু আবী শাইবা ৪/২৩২; তাবারী, আত তাফসীর ২/৩৮৮।

بَاب إِتْيَانِ النِّسَاءِ فِي أَدْبَارِهِنَّ

حَدَّثَنَا عَبْدُ اللَّهِ بْنُ سَعِيدٍ الْأَشَجُّ حَدَّثَنَا ابْنُ إِدْرِيسَ عَنْ أَبِيهِ عَنْ يَزِيدَ بْنِ الْوَلِيدِ عَنْ إِبْرَاهِيمَ فَأْتُوهُنَّ مِنْ حَيْثُ أَمَرَكُمْ اللَّهُ قَالَ فِي الْفَرْجِ

حدثنا عبد الله بن سعيد الأشج حدثنا ابن إدريس عن أبيه عن يزيد بن الوليد عن إبراهيم فأتوهن من حيث أمركم الله قال في الفرج

 হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)  পুনঃনিরীক্ষণঃ   সুনান আদ-দারেমী (হাদিসবিডি)  ১. পবিত্রতা অধ্যায় (كتاب الطهارة)

Leave a Comment

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।